পাতা:অচলায়তন - রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর.pdf/৭০

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


8 দর্ভকপল্লী পঞ্চক । নির্বাসন, আমার নির্বাসন রে ! বেঁচে গেছি, বেঁচে গেছি। কিন্তু এখনও মনটাকে তার খোলসের ভিতর থেকে টেনে বের করতে পারছিনে কেন ? গান এই মৌমাছিদের ঘরছাড়া কে করেছে রে । তোরা অামায় বলে দে ভাই বলে দে রে । ফুলের গোপন পরানমাঝে নীরব স্বরে বঁশি বাজে— ওদের সেই মধুতে কেমনে মন ভরেছে রে । যে মধুটি লুকিয়ে আছে দেয় না ধরা কারো কাছে ওদের সেই মধুতে কেমনে মন ভরেছে রে । দর্ভকদলের প্রবেশ প্রথম দৰ্ভক । দাদাঠাকুর । পঞ্চক । ও কী ও । দাদাঠাকুর বলছিস কাকে ? আমার গায়ে । দাদাঠাকুর নাম লেখা হয়ে গেছে নাকি ? প্রথম দৰ্ভক । তোমাদের কী খেতে দেব ঠাকুর ? পঞ্চক । তোদের যা আছে তাই আমরা খাব ৷ দ্বিতীয় দৰ্ভক। আমাদের থাবার ? সে কি হয় ? সে যে সব ছোওয়া হয়ে গেছে ।