পাতা:অচলায়তন - রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর.pdf/৭১

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


অচলায়তন ԳՏ পঞ্চক । সেজন্যে ভাবিসনে ভাই । পেটের খিদে যে আগুন, সে কারও ছোওয়া মানে না, সবই পবিত্র করে। ওরে তোরা সকালবেলায় করিস কী বল তো। ষড়ক্ষরিত দিয়ে একবার ঘটশুদ্ধি করে নিবিনে ? তৃতীয় দৰ্ভক। ঠাকুর, আমরা নীচ দর্ভকজাত—আমরা ওসব কিছুই জানিনে। আজি কত পুরুষ ধরে এখানে বাস করে আসছি কোনোদিন তো তোমাদের পায়ের ধুলা পড়েনি। আজ তোমাদের মন্ত্র পড়ে ; আমাদের বাপ পিতামহকে উদ্ধার করে দাও ঠাকুর। পঞ্চক । সর্বনাশ । বলিস কী । এখানেও মন্ত্র পড়তে হবে । তাহলে নির্বাসনের দরকার কী ছিল । তা, সকালবেলা তোরা কী করিস বল তো । প্রথম দৰ্ভক। আমরা শাস্ত্র জানিনে, আমরা নামগান করি । পঞ্চক। সে কী রকম ব্যাপার ? শোনা দেখি একটা । দ্বিতীয় দৰ্ভক। ঠাকুর, সে তুমি শুনে হাসবে। পঞ্চক । আমিই তো ভাই এতদিন লোক হাসিয়ে আসছি—তোরা আমাকেও হাসাবি—শুনেও মন খুশি হয়। আমি যে কী মূল্যের মানুষ সে তোরা খবর পাসনি বলে এখনও আমার হাসিকে ভয় করিস। কিছু ! ভাবিসনে—নিৰ্ভয়ে শুনিয়ে দে । প্রথম দৰ্ভক। আচ্ছা ভাই আয় তবে--গান ধর । গান ও অকুলের কুল, ও অগতির গতি, ও অনাথের নাথ, ও পতিতের পতি । ও নয়নের আলো, ও রসনার মধু, ও রতনের হার, ও পরানের বঁধু ।