পাতা:অধিকার-তত্ত্ব.pdf/৬৩

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


{ (tર ] নবম অধ্যায় । سیستم های سیاسی ব্ৰহ্মজ্ঞানীর ব্যবহার-ক্ষেত্র। ১। ইতিপূর্বে বলা গিয়াছে যে ব্রাহ্মবাদীই অন্যের অধিকার পরীক্ষা করত তদনুযায়ী পৌত্তলিক বা উচ্চধৰ্ম্মের উপদেশ করিবার যোগ্য পাত্র, এবং তাদৃশ উপদেশে ব্রতী হওয়া উছার নিতান্তই কৰ্ত্তব্য, কিন্তু স্বয়ং উপহার অপের উপাসনা করা অনুচিত। পূৰ্ব্বকালে ভারতবর্ষের ব্রাহ্মজ্ঞানীঋষিগণ আপনার তৎকাল-প্রচলিত যজ্ঞাদি করিতেন না, কিন্তু অম্প-মেধা-বিশিষ্ট ভক্তদিগের হিতের নিমিত্তে তাহার অনুমোদন করিতেন । তা হাতে সে সময়ের কনিষ্ঠোপাসকগণ র্তণ হারদের প্রতি দ্বেষ না করিয়া বরং অণপনারাই র্তাহারদের শিষ্য হইয়াছিলেন । তদ্রপ এক্ষণকার ব্রহ্মবাদীরা যদি এক্ষণকণর সম্ভবমত স্বজাতীয় থারায় ধীরভাবে ও বিনীত স্বভাবে কার্য্য করেন, তবে তাহার। পুত্তলিকার পূজা না করিলেও তাহদের ব্রহ্মজ্ঞান-পরিপূরিত, অথবা দুৰ্ব্বলাধিকারীদিগের ধারণার উপযুক্ত উপাদেয় উপদেশ সকল সৰ্ব্বত্রেই সমাদরের সহিত গ্রাহ্য হইবেক, এবং তঁiহার কনিষ্ঠ ধৰ্ম্মাবলম্বীদিগের অন্তরঙ্গ ভিন্ন বহিরঙ্গ রূপে বিবেচিত হইবেন না । ২। . ব্রহ্মোপাসক কখন “ ব্রহ্মজ্ঞানী ” বা “ ব্রাহ্ম " প্রভৃতি কোন ধৰ্ম্মিকভা-প্রকাশক বা সম্প্রদায়-জ্ঞাপক উপাধি গ্রহণ করিবেন না । কেবল কাৰ্য্য দ্বারা তাহার পরিচয়