প্রধান মেনু খুলুন

পাতা:অনাথবন্ধু.pdf/২৫৫

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


প্রথম খণ্ড-চতুর্থসংখ্যা। ] মহারাজ শ্ৰীষ্টীর মিত্ৰোদ করিতেন; আপনার সেই চিন্তাপূর্ণ ইচ্ছা সম্পূর্ণ সাফল্যলাভ করিয়াছে। আমি আপনার রাজ্যে আসিবার পর যুবরাজের সহিত অনেক সময় অতিবাহিত করিয়াছি। যুবরাজের বুদ্ধিমত্তা, কাৰ্য্যকারীশক্তি, উৎসাহ ও চরিত্রবলদৰ্শনে আমি মুগ্ধ হইয়াছি।” আটাশ বৎসর বয়সে মহারাজ বীর মিত্ৰোদয় শোণিপুরের সিংহাসনে আরোহণ করেন । তদবধি তিনি রাজ্যশাসনের উন্নতিবিধানে সচেষ্ট রহিয়াছেন। তঁহার প্রজাবর্গেরবিশেষতঃ শিল্প ও কৃষিবলের উন্নতিসাধনে তিনি অবিশ্ৰান্ত চেষ্টা করিয়া আসিতেছেন। সকল বিষয়ে তাহাব দুরদশিত basis মহারাজ ভারতের প্রায় সর্বস্থানে পৰ্যটন করিয়া বিশেষ অভিজ্ঞতা সঞ্চয় করিয়াছেন। ১৯০৩ খৃষ্টাব্দের জানুয়াৰী মাসে এবং ১৯১১ খৃষ্টাব্দের ডিসেম্বর মাসে দিল্লীতে যে দরবার হইয়াছিল, তাহাতে তিনি ভারত গবমেণ্টকত্ত্বক আমন্বিত হইয়া উপস্থিত ছিলেন এবং দুই দরবারেই সরকাবের নিকট হইতে সুবর্ণপদক প্ৰাপ্ত হইয়াছেন । ১৯১২ খৃষ্টাব্দে ব জানুয়ারী মাসে সম্রাটু যখন কলিকাতায় প্রিন্সেপ ঘাটে জাহাজ হইতে অবতরণ করেন, তখন মহারাজ শ্ৰীল শ্ৰীসূক্ত বীর মিত্ৰোদয় সিংহ দেব বাহাদুরই তাতাকে সৰ্ব্বপ্রথমে অভ্যর্থনা করিয়াছিলেন । মহারাজের। কাৰ্য্যদক্ষতা ও খ্যাতি । শাসনদক্ষতায় ও শাসনকাৰ্য্যের কৃতিত্বসাধনে মহারাজ বাহাদুর বড় বড় রাজপুরুষের খ্যাতি অর্জন করিয়াছেন । র্তাহার বর্তমান সময়োচিত শাসন প্ৰণালীদর্শনে সকলেই প্রীত হইয়াছেন। উদাহরণস্বরূপ কয়েকজন বিশিষ্ট বাজপুৰুষের মন্তব্যের কিয়দংশমাত্র নিম্নে উদ্ধত করা হইল - মধ্যপ্রদেশের চিফ কমিশনার বাহাদুর বলিয়াছেন, — যুবরাজের বুদ্ধির প্রখরতা, কাৰ্য্য করিবার ক্ষমতা, উৎসাহ এবং চরিত্ৰবলদশনে আমি বিশেষ প্রীত হইয়াছি । বঙ্গের ভূতপূৰ্ব ছোটলাট স্তৱ য়্যাণ্ড ফ্রেজার বাঙ্গাতুল ১৯৩৬ খৃষ্টাব্দের দরবারে মহারাজ বীর মিত্ৰোদয় সিংহ বাহাদুরের শাসনসম্বন্ধে প্ৰশংসা করিতে করিতে অন্যান্য নানা কথার মধ্যে এই কয়টি কথাও বলিয়াছিলেন। —“প্ৰায় ত্ৰিশ বৎসর পূর্বে আমি সৰ্ব্বপ্রথমে শোণিপুরে গমন করি এবং সেই সময় হইতে আপনার বংশের সহিত আমার বন্ধুত্ব ও ঘনিষ্ঠতা জন্মিয়াছে। উড়িষ্যায় সমস্ত রাজন্য বৰ্গকে * আপনি যে সুন্দর উদাহরণ প্ৰদৰ্শন করিতেছেন, তাহা দশনে আমি বিশেষ প্রীত হইয়াছি। সুশাসক, বিচক্ষণ, মিতব্যয়ী, ন্যায়নিষ্ঠ এবং বিবেচনাপূর্বক উন্নতিশীল বলিয়া আপনার খ্যাতি আছে। ১৯০৫ খৃষ্টাব্দে উড়িষ্যারাজ্য বাঙ্গালার অন্তৰ্ভুক্ত হওয়া অবধি আপনি বঙ্গীয় গবমেন্টের অধীনে আছেন এবং আমি বঙ্গীয় গবমেণ্টের কর্তৃপদে প্ৰতিষ্ঠিত 8 u Jahn য় সিংহ দেব ধৰ্ম্মনিধি বাহাদুর। WSצ, unun a Ap og থাকিয় যে কেবল আপনাকে আপনার সাধারণ ষ্টেটের সুশাসনের জন্য ধন্যবাদ প্ৰদান করিতেছি, তাহা নহে, পরন্তু আপনি উড়িষ্যা অঞ্চলের নুতন বন্দোবস্তে আমাকে যে সাহায্য করিয়াছেন, সে জন্য ও আমি আপনাকে ধন্যবাদ প্ৰদান করিতেছি।” ইহার পূর্বেই বড়লাট বাহাদুর কটকে যে দরবার করিয়াছিলেন, সেই দরবারে যে সমস্ত রাজন্য বর্গ উপস্থিত হইয়াছিলেন, তাহাদের মধ্যে শোণিপুরের মহারাজ বাহ দুরকেই প্ৰাধান্য প্রদত্ত হইয়াছিল। 可变计可忆骄可@哥t可e开列了1 গত কয়েক বৎসরে শোণিপুররাজ্যে শিক্ষাপ্ৰদানব্যাপারের বিশেষ উন্নতি সাধিত হইয়াছে। রাজ্যের বহু গ্রামে ও নগরে বালক ও বালিকাদিগের শিক্ষার জন্য অনেকগুলি প্ৰাথমিক বিদ্যালয় প্রতিষ্ঠিত হইয়াছে। মহারাজ বাহাদুর BBD DBKD KDBBB BDDBKDBDBSDDD S SDBB DLLYYS যে দিকেই দৃষ্টিপাত করা যায়, সেই দিকেই প্ৰতি প্ৰতিষ্ঠানে —প্ৰতি অনুষ্ঠানে এই রাজ্যের নৃপতির প্রজাপ্রতির পুর্ণ পরিচয় পাওয়া যায়। প্ৰজাবগও তাহদের রাজাকে একান্তচিত্তে শ্ৰদ্ধা, ভক্তি ও সম্মান করিয়া থাকে। এই রাজ্যের প্রজাদিগের রাজভক্তি অতি প্ৰাচীনকাল হইতে প্ৰবলা ; কাল সেই রাজভক্তি কিছুমাত্র ক্ষুন্ন করে নাই । শোণিপুররাজ্যের প্রজাবর্গের হিতসাধন-চিন্তা মহারাজের মনে অহানিশ জাগিয়া আছে । সেই জন্য তিনি ন্যায়নিষ্ঠ ও সুশিক্ষিত নৃপ৩ি বলিয়া সম্মানিত। মহারাজ বাহাদুর স্বয়ং সাহিত্যানুরাগী, বিপ্তোৎসাহী ও বিদ্বজনপ্ৰতিপালক । যদিও তিনি হা-বেজাশিক্ষাব্য অনুরাগী, কিন্তু তিনি বৈদিক হিন্দুধন্মের বিশেষ অংy বক্ত। তাহার ধৰ্ম্মে একান্ত আনুরক্তি LLB DDDDLSSSDDBB ESB BKKBBDBDDBBDB DDBDD “ধৰ্ম্মনিধি” উপাধিতে ভূষিত করিয়াছেন। মহারাজ বাহাদুর DBDBD BBBB KB DBDD BDLDD DBDDS S DBS এবং এক জন সুবিখ্যাত প্রত্নতত্ত্ববিদকে তঁহার রাজ্যের সম্পূণ ইতিহাস রচনা করিতে নিযুক্ত করিয়াছেন। মহারাজ বেহার ও উড়িষ্যার প্রত্নতত্ত্বানুসন্ধান সমিতির ভাইস পেট্ৰণ । ইনি উন্নতির এবং হিতজনক সংস্কারের পক্ষপাতী । মহারাজের রাজভক্তি । ইংরেজরাজের প্রতি মহারাজ বাহাদুরের ঐকান্তিক ভক্তির কথা উচ্চপদস্থ রাজপুরুষদিগের উক্তিতে সৰ্ব্বদাই সপ্ৰকাশ। ইংলণ্ডের সহিত জাৰ্ম্মণীর যুদ্ধ বাধিলে মহারাজ বাহাদুর সামন্তরাজগণের মধ্যে সর্বপ্রথমেই তঁহার রাজ্যের সমস্তই সরকারের হন্তে সমৰ্পণ করিতে চাহিয়াছিলেন । সেই জন্য বেহার ও উড়িষ্যার ছোটলাট বাহাদুর মহারাজকে yQți fortsstra i DS3 War Relief Funda