প্রধান মেনু খুলুন

পাতা:অন্ধকারের আফ্রিকা.djvu/১৩২

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


সুgসালেণ্ড » YSፃ প্রায় এক শত গজ দূরে রেখে আমিও বাঁদিকে চেয়ে সাইকেল চালাতে লাগলাম। হঠাৎ দেখতে পেলাম সিংহের বাচ্চার মা বাবা এবং ভাই বােনেরা বেরিয়ে এসেছে। তখন আমার মন হতে অবাস্তব ভাবের লোপ পায় এবং চিন্তা হয়, সিংহপরিবার যদি আমাকে আক্রমণ করে তবে আমার অবস্থা হবে একটি ময়ােগরুর চারিপাশে ঘেরে শকুনীদের মতই। • মনে চিন্তা হচ্ছিল। আর পা পুরাদমে সাইকেলের পেড়েলে চাপ দিচ্ছিল । সিংহপরিবারকে এড়িয়ে যাবার পর একটি গ্রামের কাছে পৌছে সাইকেল হতে নামীলাম এবং বসে বিশ্রাম করতে লাগিলাম । গ্রামটি বেশ বড় । দূর থেকে বংগদেশের গ্রামের" মতই দেখায় চার চালার, গোল চালায় ঘরগুলি শ্ৰেণীবদ্ধ হয়ে নীচের দিকে চলে গিয়েছিল। বাংলা দেশের ঘরগুলি শ্রেণীবদ্ধ নয়। আর ওদের ঘরগুলি শ্ৰেণীবদ্ধ। বাংগালীয়া কেন যে শ্রেণীবদ্ধ হয়ে ঘর তৈরী করেনি তার কারণ আমার জানা আছে, তবে এখানে এসব কথা বলার নয় বলেই বললাম না । প্ৰত্যেক ঘরের দেওয়ালগুলি মাটির আর উপরে খড়ের চালা। চালায় ছন এবং খড় উভয়ই দেওয়া হয়েছে। বিচাৰ্লী ব্যবহারের প্রথাটাও বেশ পরিষ্কার এবং আমাদেরই মত। গ্রামের কয়েকটি দোকান ছিল, থাকবার হোটেল ছিল না।” খাবারের দোকানে গিয়ে বসলাম , দেখলাম উত্তম স্থতে বড় বড় ফটি ভেজে তা বিক্রি করা হচ্ছে। নানারূপ মুংসেরও তরকারী fইন্ম, আমি সেদিকে না তাকিয়ে দুখানা রুটি কিনে দুধ এবং চা। ষে দোকানে বিক্রি হয় সে দোকানে গিয়ে বসলাম। দেখুলাম, আমারই মত অনেকে খাবারের দোকান হতে শুধু ভাজা স্কটি নিয়ে গরম দুধের অপেক্ষা করছে। দুধ গরম হয়ে গেলে অনেক মাস