প্রধান মেনু খুলুন

পাতা:অপরাজিত - বিভূতিভূষণ বন্দ্যোপাধ্যায়.pdf/১৮৪

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


১৮৪ অপরাজিত ফাঁকে দ-এক ধরণের মাত্র বসন্তের ফুল প্রথম ফুটিত্বে শার করে, তখন সেখানকার সোডা-আলাকালির পলিমাটিপাড়া রৌদ্রদীপ্ত মন্ত তরবলায়ের রহস্যময় রূপ-কিংবা ওয়ালোয়া হদের তীরে উন্নত পাইন ও ডগলাস ফারের ঘন অরণ্য, হলদেও স্বচ্ছ বরফগলা জলের তুষারকিরীটিী মাজামা আনেয়গিরির প্রতিচ্ছায়ার কক্ষপন - “উত্তর আমেরিকার ঘন, স্তব্ধ, নিজািন আরণ্যভমির নিয়ত পরিবতনশীল দশ্যেরাজি, ককােশ বহুধর পর্বতমালা, গভীর।নিনাদী জলপ্রপাত ফেনিল পাহাড়ী নদীতীরে বিচরণশীল বলগা হরিণের দল, ভালক, পাহাড়ী ছাগল, ভেড়ার দল, উষ্ণ প্রস্রবণ, তুষারপ্রবাহ, পাহাড়ের ঢােলর গায়ে সিডার ও মে'পল গাছের বনের মধ্যে ধনে ভ্যালেরিয়ান ও ভায়োলেট ফুলের বিচিত্ৰ বণ সমাবেশ-দেখা নাই

  •  ? ५ ५ ।।

টাহিটি ! টাহিটি ! কোথায় কত দারে, কোন জ্যোৎস্নালোকিত রহস্যময় কলহীন সর্বপ্নসম,দ্রের পারে, শািভরাত্রে গভীর জলের তলায় যেখানে মত্তার জন্ম হয়, সাগরগাহায় প্রবালের দল ফুটিয়া থাকে, কানে শািন্ধ দরশ্ৰত সঙ্গীতের মত তাহাদের অপােব আহবান ভাসিয়া আসে । আফিসের ডেসেক বসিয়া এক একদিন সে সবপ্নে ভোর হইয়া থাকে - এই সবের সর্বপ্নে । ঐ রকম নিজন স্থানে, যেখানে লোকালয় নাই, ঘন নারিকেল কুঞ্জের মধ্যে ছোট কুটিরে, খোলা জানােলা দিয়া দরের নীল সমদ্র চোখে পড়িবে - তার ওপারে। মরকতশ্যাম ছোট ছোট দ্বীপ, বিচিত্র পক্ষীরাজ অজানা দেশের অজানা আকাশের তলে তারার আলোয় উচ্চািজল মাঠটা একটা রহস্যের বার্তা বহিয়া আনিবে - কুটিরের ধারে ফুটিয়া থাকিবে ছোট ছোট বনফুল - শ,ধ, সে আর অপণা । এই সব বড়লোকের টাকা আছে, কিন্তু জগৎকে দেখিবার, জীবনকে বঝিবার পিপাসা কই এদের ? এ সমেণ্ট বাঁধানো উঠান, চেয়ার, কোচ, মোটর-এ ভোগ নয়, এই শোঁখােন বিলাসিতার মধ্যে জীবনের সবদিকে 'আলো-বাতাসের বাতায়ন আটকাইয়া এ মরিয়া থাকা-কে বলে ইহাকে জীবন ? তাহার যদি টাকা থাকিত ? কিছও যদি থাকিত, সামান্যও কিছ । অথচ ইহারা তো লাভ-ক্ষতি ছাড়া আর কিছ, শেখে নাই, বোঝেও না, জানে না, জীবনে আগ্রহও নাই কিছ৩ে.ই. ইহাদের সিম্পদকে-ভরা নোটের তাড়া । এই আফিস-জীবনের বদ্ধতাকে অপ, শান্তভাবে, নিরপোয়ের মত দািবলের মত মাথা পাওয়া স্বীকার করিয়া লইতে পারে নাই । ইহার বিরুদ্ধে, এই মানসিক দারিদ্র্য ও সঙ্কীণ তার বিরদ্ধে তাহার মনে একটা যন্ধ চলিতেছে অনবরত, সে হঠাৎ দামবার পাত্র নয় বলিয়াই এখনও টিকিয়া আছে,-ফেনোচ্ছিল। সারার মত জীবনের প্রাচুর্য ও মাদকওঁ তাহার সারা অঙ্গের শিরায় উপশিরায়-ব্যগ্র, আগ্রহভগ্না তরুণ জীবন বকের রাষ্ট্রে উন্মত্ততালে সপন্দিত হইতেছে দিনরাত্রি৩াহীর সংগ্নকে আনন্দকে নিঃশবাস বন্ধ করিয়া মারিয়া ফেলা খাব সহজসাধ্য 3 কিন্তু এক এক সময় তাহারও সন্দেহ আসে । জীবন যে এই রকম হইবে, সৰ্যোদয় হইতে সষান্ত পর্যন্ত প্রতি দন্ড পল যে তুচ্ছ অকিঞ্চিৎকর বৈচিত্র্যহীন