পাতা:অমৃত গ্রন্থাবলী প্রথম ভাগ.pdf/২৭২

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


হীরকচূর্ণ নাটক । বিষয়ে এ স্কট প্রস্তাব পড়েছি, এখন দেশের সমস্ত লোক মত দিলে হয় । মদ। দেশের লোকের, বিশেষ হিন্দুদের এটা অবগু কৰ্ত্তব্য কৰ্ম্ম । এখন একবার রেসিডেন্সির দিকে যাবে, একবার চল না, কোন সংবাদ এসে থাকে তো জানতে পার। যাবে । আস্থা । ষাবেন, চলুন। { উভয়ের প্রস্থান । তৃতীয় গভর্ণঙ্ক । اسم مستعصم . নগরপ্রাস্তে সরোবরকুল।” ( একজন উদাসিনীর প্রবেশ ) फैज्ञा- গীত । তিলককমিদ--ঋণপতাল । “মলিন মুখচন্দ্ৰম ভারত তোমারি । রান্ত্রি দিবা ঝরিছে লোচনবারি । চন্দ্র জিনি কাস্তি নিয়খিয়ে ভাসিতীম श्रiनानि, আজি এ মলিন মুখ কেমনে নেংরি । এ দুঃখতোমারি,স্থায় রে, সহিতে না পারি ॥” [ প্রস্থান । ( দামোদরের প্রবেশ ) দামো ! ও: !.এখানেও ভারতের ক্রননধ্বনি, এ হাহাকাররব কি আমায় ধিক্কার প্রদান করবার জন্ত আমার অনুসরণ করেছে ? কোথাও আমার মুখ নাই-লোকে আমাকে দেখলেই পাপাত্মা, কুতন্ত্র, অর্থপিশাচ ব’লে ঘৃণা করে । আগে আমি সকলের পুজ্য ছিলেম, এখম আমি সকলের ঘূণ্য হয়েছি । যে অর্থের জন্ত আমি এত কল্লেম, যে অর্থের জঙ্ক আমি সকলের চক্ষের বিষ ছলেম, যে অর্থের २१७ লালসায় অন্ধ হয়ে এত ঘন্ত্রণ ভোগ কছি, এখন সেই অর্থই আমার চক্ষের কঙ্কর হয়েছে । আমার অট্টালিকা, আমার ঐশ্বৰ্য্য, আমার ধনসম্পত্তিই আমায় অধিকতর যন্ত্রণ প্রদান করে । ধখনি আমার ধনরাশির প্রতি দৃষ্টি পড়ে, তখনি আমার হৃদয়ে সহস্র বিষধরদংশন-যন্ত্রণ উপস্থিত হয়! ও; ! অর্থলিঙ্গ रु८ङ ङद्रकद्र श्राद्र क्रिकूझे नाई-किङ्करठझे মানুষের এত অণর সর্বনাশ করে না। অর্থ সাধুকে অসাধু করে, আত্মীয়কে পর করে, চিরপরিচিত মিন্ত্রকেও শুক্র করে । দারুণ শক্ররও যেন কখন অৰ্থলিপ্য না হয় – কর্ণেল ফেয়ার ! তোমার : দ্যমধ্যে শত সহস্ৰ কলস বিব মিশ্রিত হউক, শত সংস্র मन शैद्रक-ठून ८ठाभाद्र शभिहे भानौब्रहरू বিষাক্ত করুক-কিন্তু তুমি দরিদ্র থাকঅর্থলিপা। কখন যেন তোমার হৃদয়ে প্রবেশ না করে। মুবর্ণের মোহিনী মূৰ্ত্তিমধ্যে যে গরল লুক্কায়িত থাকে,তাহ হীরকচূর্ণ অপেক্ষ। ফুল গুণে তীব্রতর ! ওঁ ! আমি কি দ্বন্ধখুঁই করেছি ! আমার লোভেই, আমার স্বার্থপরতাতেই এই বিপুল রাজবংশ ধ্বংস হ’ল। যতই আমি এই বিষ চিন্তু করি, उठ३ श्राभन्न क्षनम्न प्रश्व इंटरु थाप्क । भुश হাররাও ! তুমিও আমা অপেক্ষ শত সংস্র গুণে মুখী— কারাগারে তুমি বা কত যন্ত্রণ। সহ কচ্ছে !—সিংহাসনহার হয়ে তুমি বা কত মনস্তাপ পাচ্ছি —এ পাপহৃদয় যে যন্ত্রশায় অহৰ্নিশি জগছে, তার সঙ্গে কোন কষ্ট্রেরই তুলনা হয় না। সকল প্রকার ধাতনার সঙ্গেই আমি এ দারুণ মনোবেদনার বিনিময় কৰ্ত্তে প্রস্তুত আছি। পূৰ্ব্বে পরকাল বাতুলের প্রগাপ ব'লে তাচ্ছল্য করেছিলেম । জতুতাপ ষে কি ভয়ঙ্কর শাস্তি, তা কখন স্বপ্নেও किंछ कब्रि मारे !--किक 4थम ८ए t१ छांग