পাতা:অশনি সংকেত - বিভূতিভূষণ বন্দ্যোপাধ্যায়.pdf/৭১

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


অশনি-সংকেত ধ্যে একটা শিমালগাছ মাথা তুলে দাঁড়িয়ে আছে! ষাঁড়াগাছের দাভেদ্য ঝোপের মধ্যে মাগড়ি দিয়ে ঢুকতে হয় । ওরা এগিয়ে গিয়েচে অনেকখানি । কিন্তু অনঙ্গ-বেী আর কাপড় ছাড়াতে পারে না। क दिी कॉं । মতি মাচিনী বিরক্ত হয়ে বললে-তখনি বললাম তুমি এসো না। এখানে আসা কি তামার কাজ ? কক্ষনো কি এসব অভ্যোস আছে তোমার ? সরো দেখি মতি এসে কাঁটা ছাড়িয়ে দিলে । অনঙ্গ-বেী রাগ করে বললে-ছালি তো এই সন্দেবোলা ? মতি হেসে বললে-নেয়ে মরো এখন বামন-দিদি । --যা যা, আর মজা দেখতে হবে না তোমার-ঢের হয়েচে । আরও এক ঘণ্টা কেটে গেল। মস্ত বড় মেটে আল, লতার গোড়া খড়ে সেরা পাঁচ-ছয় জনের বড় আলােটা তুলতে ওরা সবাই ঘেমে নেযে উঠেছে । মতি মাচিনী মাটি মেখে ভুত য়চে, কােপালী-বোঁ লতার জঙ্গল-টেনে ছিড়িতে ছিড়িতে হাত লাল করে ফেলেচে, অনঙ্গ-বেী কটু আনাড়ির মত আলর একদিক ধরে ব্যথা টানাটানি করচে গতি থেকে সেটাকে তুলবাের কােপালী-বোঁ হেসে বললে-রাখো, রাখো বামন-দিদি, ও তোমার কাজ নয়। দাঁড়াও 冈°円一 বলে সে এসে দ'হাত দিয়ে টানতেই আলােটা গাত থেকে বেরিয়ে এল । অনঙ্গ-বোঁ অপ্রতিভের হাসি হেসে বলল-আমি পারলাম না-বাবাঃ-কোথা থেকে পারবে বামন-দিদি-নরম রাঙা হাতের কাজ নয়। ওসব । --তুই যা-তোকে আর ব্যাখ্যান কত্তে হবে না মািখপাড়ীএমন সময় এক কাণ্ড ঘটলো । সেই ঘন ঝোপের দীর প্রান্তে একজন দাড়িওয়ালা গায়ান মত চেহারার লোকের আকস্মিক অবিভব হোল । লোকটা সম্পভবতঃ মেঠো পথ য়ে যেতে যেতে নদীতীরের ঝোপের মধ্যে নারীকন্ঠের হাসি ও কথাবাত শািনতে পেয়ে দকে এসেচে। কিন্তু তার ধরনধারণ ও চলনের ভঙ্গি, চোখের দস্টি দেখে সব প্রথমে অনঙ্গয়ের মনে সন্দেহ জাগল। ভাল নয়। এ লোকটার মতলব ! ঝোপের মধ্যে তিনটি সম্পণে পরিচিত মেয়েকে দেখেও ও কেন এদিকেই এগিয়ে আসচে ? যে ভদ্র হবে, সে এমন ভূত আচরণ কেন করবে ? মতি এগিয়ে এসে বললে-তুমি কে গা ? এদিকি মেয়েছেলে রয়েচে-এদিকি কেন আসচো ? কােপালী-বৌও জনান্তিকে বললে-ওমা, এ ক্যানধারা নোক গা ? লোকটার নজর কিন্তু অনঙ্গ-বোয়ের দিকে, অন্য কোনদিকে তার দস্টি নেই। সে হন, করে সোজা চলে আসচে। অনঙ্গ-বৌয়ের দিকে । অনঙ্গ-বেী ওর কান্ড দেখে ভয়ে জড়সত্যু য় মতির পেছন দিকে গিয়ে দাঁড়ালো। তার বািক ঢিপ ঢিপ করচে-ছাঁটে যে একদিকে লাবে এ তেমন জায়গাও নয়। তখনও লোকটা থামে নি । মতি চে'চিয়ে উঠে বললে-কেমন নোেক গা তুমি ? ঠেলে আসচো যে ইদিকে বড়ো ? { কােপালী-বেী এসময়ে আরও পিছিয়ে গিয়েছে । কারণ কাছাকাছি এসে লোকটা ওর দিকেও Pবার কাটােমট করে চেয়েচে-মাখে। কিন্তু লোকটা কোন কথা বলে নি ।