পাতা:অষ্টাঙ্গ হৃদয় - বাগ্‌ভট.pdf/১০১

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


R v সূত্ৰস্থান। । 8& অজীৰ্ণ রোগের কারণাস্তর। কেবল অধিক মাত্রায় ভোজনই যে আমদোষের ( অঙ্গীর্ণের ) উৎপত্তির কারণ তাঁহা নহে ; অপ্রিয়, বিষ্টভি, দগ্ধ, অপক, গুরপাক, রক্ষ, শীতল, শুষ্ক বা বহুজলমিশ্ৰিত অল্পও জীর্ণ হয় না বলিয়া তাহা অজীর্ণের কারণ হইয়া থাকে, আরও শোক ক্ৰোধ এবং कूणीि शांत्रा (आरेि • লোভ ভয় প্রভৃতি বুঝিতে হইবে) উপতপ্ত ব্যক্তিরও অন্ন জীর্ণ না হওয়ায় অজীর্ণের কারণ হয় ৷৷ ২৯৩০ • • পথ্য ও অপথ্য একত্র মিশ্ৰিত করিয়া ভোজন করিলে তাহাকে সমশন এবং ভোজনের কিঞ্চিৎ কাল পরে পুনরায় ভোজন করিলে তাহাকে অধ্যাশন কহে। আর কখন অকালে, কখন বহুপরিমাণে, বা কখন অল্প পরিমাণে ভোজন করিলে তাহাকে বিষমাশন কহে। এই ত্ৰিবিধ অশন (অনশন, অধ্যাশন ও বিষমাশন ) গুল্মাদি ঘোর বু্যাধির বা মৃত্যুর কারণ হইয়া ფitzę [] vo»ზლ 啤,曲 • স্নানের পর পিতৃলোকের তর্পণ, দেবলোককে অন্ন ব্যঞ্জনাদি নিবেদন এবং অতিথি বালক ও গুরুজনদিগকে ভোজ্য প্ৰদান দ্বারা তৃপ্ত করিয়া অশ্ব • বৃষ পক্ষী প্ৰভৃতি তিৰ্য্যক প্ৰাণী ও ভৃত্যাদির আহারের ব্যবস্থা করিবে। পরে হস্তপদ ও মুখ প্ৰক্ষালন পূর্বক নিজের শারীরিক অবস্থা বিবেচনা করিয়া বেশ ক্ষুধা বোধ হইলে আহারের উপযুক্ত কালে নির্জন স্থানে বসিয়া শুদ্ধাচার ও ভক্তজন কর্তৃক পরিবেশিত সাত্ম্য (স্বাস্থ্যের অনুকুল ), শুচি, হিতকর, দ্বতাদি স্নেহ যুক্ত, ঈষদুষ্ণ, লঘুপাক, যড়সযুক্ত অথচ মধুরীরসুপ্রধান দ্রব্যবহুল (যু্যদুগ্ধদধিযুক্ত ), হৃদ্য অল্প ব্যঞ্জনাদি তস্মনস্ক হইয়া ইষ্ট ব্যক্তির সহিত ভোজন করিবে। ভোজনকালে ভোজ্য দ্রব্যের নিন্দা করিবে না, কঁথা কহিবে না এবং অতি দ্রুত বা অতিবিলম্ব করিয়া ভোজন कद्रिद न ॥ ৩৩-৩৫ O O) ভোজ্য দ্রব্য-তৃণ কেশমক্ষিকাদি যুক্ত,পুনরায় উষ্ণাৱত, শাক বহুল, মাষাদিনিকৃষ্ট অন্নভূয়িষ্ট, অতি উষ্ণ বা অতিলবণযুক্ত হইলে তাহা পরিত্যাগ করিবে। কিলাট, দধিকূৰ্চিক, ক্ষার দ্রব্য, • শুক্ত, কচিমূলা, কৃশ পশুর মাংস, শুষ্ক মাংস এবং শূকর, ভেড়া, গো, মৎস্ত ও মহিষ মাংস, মাষকলাই, শিম, শালুক, মৃণাল, পিষ্টকু, অঙ্কুরিত শম্ভের অন্ন, শুষ্কশাক, যকক ও মাৎগুড় নিয়ত সেবন করিবুে না। (ইহা দ্বারা মধ্যে মধ্যে ইহাদের ভোজন নিষিদ্ধ, নহে ) ॥৩৬-৩৮ শালিতগুলোর অন্ন, গম, যব, যষ্টিক •ধান্যের চাউল, জাঙ্গলদেশজ পশুপক্ষীর মাংস, হরীতকী, আমলকী, দ্রাক্ষা, পটােলী, মুগ, চিনি, স্থত, বৃষ্টির জল, দুগ্ধ,মধু, দাড়িম, সৈন্ধবলবণ, এই সকল দ্রব্য সর্বদা সেবন করিবে। দৃষ্টিশক্তিবৃদ্ধির জন্য রাত্রিতে ঘূত ও মধুসহ ত্রিফলচুৰ্ণ সেবন করিবে। কেবল যে উক্ত দ্রব্যসমূহ নিত্য ব্যবহার করিবে তাহা নহে, এতদ্ব্যতীত পূৰ্ব্বে ঋতুচৰ্য্যাদিতে যে সকল স্বাস্থ্যকর অন্নপান্নাদি উক্ত হইয়াছে এবং চিরতা প্রভৃতি রোগোচ্ছেদকরা যে সকল বিষয় পরে বলা হইবে, তাহাও সৰ্ব্বদা সেবন করিবে ॥ ৩৯-৪১ মৃণাল, ইক্ষু, কদলী, কঁঠাল, আম, লর্ড ডুক, মোহনভোগ প্রভৃতি এবং গুরুপাক, স্নিগ্ধ, ' মুধুরীরস, মন্দ ও স্থিরগুণান্বিত দ্রব্য আহারের প্রথমে ড়োজন করিবে । আহারের মধ্যে অন্ন ওঁ লবণরস বহুল দ্রব্য এবং আহারান্তে লঘু তীক্ষ রূক্ষ কটুরিস ও সারক দ্রব্য সকল আহার कद्वि८ ॥ ♚२