পাতা:অষ্টাঙ্গ হৃদয় - বাগ্‌ভট.pdf/১৪৭

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


উনবিংশ অধ্যায়। অতঃপর আমরা বন্তিবিধি অধ্যায় ব্যাখ্যা করিব-যাহা আত্ৰেয়াদি মহর্ষিগণ বলিয়াছিলেন ॥১ বাতপ্রধান দোষে বা কেবল বীতে বস্তি প্রয়োগ করবে। সকল প্রকার চিকিৎসার মধ্যে বন্তিই প্রধানতম। বন্তি তিন প্রকার ; যথা-নিরূহ অম্বাসন ও উত্তর বন্তি। ( যাহা লিঙ্গাদি উত্তরমাৰ্গদ্বারা প্ৰযুক্ত হয়, তাহাকে উত্তরবস্তি কহে।) গুল্ম, আনাহ, খুড়বাত, প্লীহা, শুদ্ধ অতীসার, শূল, • জীৰ্ণ জ্বর, প্রতিষ্ঠায়, শুক্ৰবিবন্ধতা, “অনিলরোধ, মলবিবন্ধ, ব্ৰক্ষ্ম, অশ্মরী, রজোনাশ ও দারুণ বায়ুরোেগ সকল নিৰ্বাহবন্তি দ্বারা চিকিৎসা করবে। অর্থাৎ এই সকুলারোগে নিরূহ বন্তি প্ৰযোজ্য। (কিষায়দ্বারা প্রদত্ত বন্তিকে নিরূহ" বলে ) ৷ ২-৪ অতিৰ্নিগ্ধ, অত্যন্ত কৃশ,বমন বিরোচনাদি দ্বারা শুদ্ধদেহ, কৃতিনন্ত, কৃতাহার ও অল্পমাল ব্যক্তিকে ; উরঃক্ষত, আমাতীঘার, বমি, কাস, শ্বাস, প্ৰমেহ, অৰ্শ, হিকা, উদরাখুন, বন্ধোেদর, ছিদ্রোদর, দৃকোদর, কুণ্ঠ ও মধুমেহ রোগাক্রান্ত ব্যক্তিকে ; সপ্তমােস গর্ভিণীকে এবং যাহাঁদের গুহ<দেশে শেখ হইয়াছে, তাহাদিগকে আস্থাপন (নিরীহ ) বন্তি দিবে না। ॥ ৫৬ যাহারা আস্থাপন যোগ্য, তাহাদিগকে অনুবাসন বঞ্চি (মেদুবন্তি) দিবে। বিশেষতঃ যাহারা অতিবহি, দক্ষ বা কেবল বাতপীড়িত, তাহাদিগকে অবশ্য স্নেহবন্তি দিতে হইবে। যাহারা আস্থাপন বঙ্কির অনুপযুক্ত, তাহারা অনুবাসন বস্তিরও অযোগ্য। আর পাণ্ডু, কামল, মেহ, পীনস, প্লীহা, মালভেদ, গুরুকোষ্ঠতা, কফোদুর, অত্যন্তস্থ্যে, কৃমিকোষ্ঠতা, আঢ্যবাত, অপচী, দীপদ ও গলগণ্ড রোগাক্ৰান্ত ব্যক্তিগণ, অভিযািন্দসেবী, গীতবিষ্ণু বা গরবিন্যপায়ী ব্যক্তি ও নিরন্থ-ক্ৰেষ্ঠ ব্যক্তি অনুবাসনাহঁ নহে। অর্থাৎ ইহাদিগকে মেহবন্তি দিবে না। ॥ ৭-৯ নিরূহ ও অনুবাসনের যন্ত্রলক্ষণ। নিরূহ ও অনুবাসনের নেত্ৰ (নলা), স্বর্ণাদি ধাতু, শিশুপ্রভৃতি কাষ্ঠ, হস্তী প্রভৃতির অস্থি ও বংশদ্বারা, নিৰ্ম্মিত হয়। ইহা গোপুচ্ছের ন্যায় আকৃতিবিশিষ্ট, কোমল, সরল, গাত্রে ছিদ্ররহিত ও গুলিকাসদৃশ মুখবিশিষ্ট হইবে। (ইহা দ্বারা স্নেহকন্ধাদি দ্ৰব্য অঞ্চলদেশে নীত হয় বলিয়া ইহাকে নেত্ৰ কহে । ) নেত্র-পরিমাণ। এক বৎসরের নূ্যন বয়স্কের নেত্র পরিমাণু পাঁচ আঙ্গুলি, দুই হইতে ছয় বৎসর বয়ন্ধের ছয় অঙ্গুলি, সাত বৎসর বয়ন্ধের সার্ভ অঙ্গুলি, দ্বাদশবর্ষ ধরন্থের"আট অঙ্গুলি, ষোড়শবর্ষ বয়স্কের নয় অঙ্গুলি, এবং বিংশ বর্ষের পর হইতে বার অঙ্গুলি। এই ষে নেত্ৰুপরিমাণ নির্দিষ্ট হইল, ইহা একবারে বৰ্দ্ধিত করিতে হইবে না। বর্ষাক্টর অর্থাৎ মধ্যবৰ্ত্তী বর্ষ নবমাদি সকলে বিবেচনা করিয়া এবং বয়স বল ও শরীরের প্রতি লক্ষ্য রাখিয়া ক্ৰমশঃ নেত্রের পরিমাণ বৰ্দ্ধিত করিতে হইবে। নেত্রের দৈর্ঘ্য বিষয়ে যে অঙ্গুলি-পরিমাণ কথিত হইল, তাহা আঙুরের অঙ্গুলি পরিমাণ বুঝিতে হইবে ॥ ১০-১২ • S BD DBDBBDB BDB DDBDBD DBDDBiS gDESBKKBDB S BD DDDB কৃষ্ঠায় হইবে। ১৩ dh