পাতা:অষ্টাঙ্গ হৃদয় - বাগ্‌ভট.pdf/১৫২

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


Yoo অষ্টাঙ্গাহৃদয় । ت yr ( »svi sa দোষ ঔষধ ও সাত্ম্যাদি বশে উক্ত সমস্ত মতই প্ৰামাণ্য । ফলকথা, যতক্ষণ সম্যক নিরূহ লক্ষণ উপস্থিত না হয়, ততক্ষণ পৰ্যন্ত বন্তি প্ৰদান করিবে। তাহা হইতে নিবৃত্ত হইবে না ইহাই গ্ৰন্থকারের অভিমত । ગ૭8 O এক্ষণে কৰ্ম্মবস্তি কুলবস্তি ও যোগবস্তিবিশেষ কথিত হইতেছে। প্রথমে একটী স্নেহবস্তি ও শেষকালে পাঁচটি স্নেহবস্তি এবং মধ্যে দ্বাদশটী আস্থাপন ও দ্বাদশটী অনুবাসনবন্তি, এই ত্ৰিশটী বস্তি কৰ্ম্মবস্তি নামে অভিহিত হয়। কালবস্তি পঞ্চদশ প্রকার, প্ৰথমে একটী মেহবস্তি ও • শেষে তিনটী স্নেহবস্তি এবং পাঁচটী নিরূহ বস্তি দ্বারা অন্তরিত ৬টী মেহবস্তি সমুদায়ে পঞ্চদশ বস্তি । যোগবস্তি আটটী। তিনটী নিরূহ ও তিনটী অনুবাসন বন্তি এবং প্রথমে একটী ও শেষে একটী স্নেহবন্তি এই আটটা বস্তিকে যোগবস্তি বলে ॥ ৬৫,৬৬ কেবল স্নেহবস্তি বা কেবল নিরূহ বস্তি অক্তিশয় ব্যবহার করিবে না। কারণ, কেবল স্নেহ বস্তি অধিক ব্যবহার করিলে উৎক্লেশ ও অগ্নিমন্দ্যি জন্মে এবং কেবল নিরূহবন্তি অধিক ব্যবহৃত হইলে বায়ুর প্রকোপ হয়। সেই কারণে নিরূঢ় ব্যক্তিকে অনুবাসন বন্তি এবং অনুবাসিত ব্যক্তিকে নিরূহবন্তি প্ৰদান করিতে হয়। এইরূপ মোহন ও শোধন যুক্তি দ্বারা বস্তি প্ৰযুক্ত হইলে তাহা वांछॉििवषनां*iक छ्।। ९८ ॥ ७१-७ • মাত্রাবন্তি। দুই প্রহরে পরিপাক প্রাপ্ত হয়। এরূপ স্নেহপানের হ্রস্ব মাত্রার সমান স্নেহবিশ্লিষ্ট বস্তিকে মাত্রাবস্তি কহে। এই মাত্রাবস্তি, বালক বৃদ্ধ পথশ্ৰান্ত ভারদ্বাহী স্ত্রীপ্রসক্ত ব্যায়ামশীল চিন্তাপরায়ণ বাতভগ্নবল অল্পাগ্নি নৃপ ধনী ও সুখী ব্যক্তিদিগের সর্বদা শীলনীয়। কারণ মাত্রাবন্তি দোষয় অনির্যন্ত্রণ বলজনক মালভেদক ও সুখকারী ॥ ৭০,৭১ উত্তরবস্তি। স্ত্রীলোক বা পুরুষের বস্তিস্থানে রোগ হইলে তাহাদিগকে দুইটী বা তিনটী আস্থা- ? পন বস্তিদ্বারা শুদ্ধ করিয়া স্ত্রীলোকদিগের যোনি ও গর্ভাশয়ে এবং পুরুষদিগের লিঙ্গে উত্তরবস্তি প্ৰদান করিবে ॥ ৭২ ' ' উত্তরবস্তির নেত্ৰ (নল) আতুরের অঙ্গুলির দ্বাদশ অঙ্গুল পরিমিত দীর্ঘ হুইবে। (স্ত্রীলোকদিগের ব্যপ্তিনেত্র দশ অম্বুল)। ইহা গোলাকার, গোপুচ্ছসিদৃশ, মন্থণ, দৃঢ়, স্বর্ণাদি ধাতু নিষ্মিন্ত এবং কুন্দ করবীর ও 'জাতী পুষ্পের বৃন্তোপম হইবে। ইহার মূলভাগে ও মধ্যে কণিকা সন্নিবিষ্ট থাকিবে এবং অগ্রভাগের ছিদ্র শ্বেতসর্ষপু :প্রবেশ যোগ্য क्षेत्र ॥'१७,१8 n এই নেত্ৰে মৃদু ও লঘু বস্তি যোজনা করিবে। উত্তরবস্তির মেহের পরিমাণ ৪ তোলা, অথবা বয়স বা সত্ত্ব ও দেহ সাত্ম্যাদি বিবেচনা করিয়া মেহের মাত্ৰা কল্পনা করিবে ॥ ৭৫ অতঃপর নিরূহ বস্তিবিধানে মঙ্গলাচরণ করিয়া রোগিকে স্নান এবং স্নেহ বস্তিবিধানে ভোজন করাইবে। পরে জানুসম উচ্চ কোমল আসনে সরলভাবে উপবেশন করাইয়া, স্রোতঃশুদ্ধির জন্য অগ্ৰে তাহার স্তন্ধ ও খজুভাবে অবস্থিত লিঙ্গে সুন্ম শলাকা ধীরে ধীরে প্রবেশ করাইবে । শলাকাদ্বারা লিঙ্গ শুদ্ধ হইলে সেবনী লক্ষ্য করিয়া লিঙ্গান্ত পৰ্য্যন্ত গুহাদেশের ছায় নিষ্কম্পভাবে নেত্র প্রয়োগ করিবে। তৎপরে বন্তিপুটপীড়নদ্বারা স্নেহ প্রবিষ্ট হইলে হণ্ড ও পার্ষি দ্বারা শিক্ষক প্রদেশে আঘােতাদি মেহবস্তির নিয়ম সকল পালন করিবে ॥ ৭৬-৭৮