পাতা:আজ কাল পরশুর গল্প.pdf/২৩

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


°t西夺t可外有四可引颈 সবাই জানে, বনমালীর বেীকে সদরের দত্ত-বাবু ভুলিয়ে ভালিয়ে ঘর ছাড়িয়ে চালান দিয়েছে ব্যবসা করার জন্য। প্ৰথমে সদরে রেখেছিল বৌটাকে, বনমালী হন্যে হয়ে খুজে খুজে তাকে যখন প্ৰায় আবিষ্কার করে ফেলেছিল তখন আবার তাড়াতাড়ি কোথায় চালান করে দিয়েছে। অনেক চেষ্টা করেও বনমালী আর হদিস পায়নি । এখনো সে মাঝে মাঝে সদরে গিয়ে সন্ধান করে। টেকো নন্দী বলে, “আহা, দোষ করেছে কি করেনি। তাই তো মোরা বিচার করব।” বনমালী রুখে বলে, ‘বটে’ ? কোন দোষ করেনি, তবু বিচার হবে দোষ করেছে কি করেনি ? এ তো খুড়ো ঠিক কথা নয়। গায়ের কোন মেয়েছেলে গা ছেড়ে ক’দিন বাইরে গেলে যদি তার বিচার লাগে, তবে তাে বিপদ!' ); করালী বসে থেকেই গলা চড়িয়ে বলে, “ঠিক কথা, গায়ে খেতে পায়নি, সোয়ামী কাছে নেই, তাই সদরে খেটে খেতে গেছে। ওর দোষটা কিসের ?” কে একজন মাথাটা নামিয়ে আড়াল করে বলে, “সে-বেলা তো কেউ আসেনি, দু’টি খেতে-পরতে দিতে ? কানাই বিদেশে তিন ছেলে আর দুই মেয়ে হারিয়ে শুধু নিজের বেী আর বড় ছেলের বৌকে নিয়ে গাঁয়ে ফিরেছে। সে বলে, তাদের তিন জনের কইমাছের প্রাণ, সহজে যাবার নয়, যায়ওনি তাই। তাকে উঠে দাড়াতে দেখা যায়, সে থর থর করে কঁপিছে, মুখে এক অস্তুত উদভ্ৰান্ত উন্মাদনার ভাব। কথা তার এলোমেলো হয়ে যায়, ‘প্ৰাণে ò:D