পাতা:আত্মকথা - সত্যেন্দ্রনাথ ঠাকুর.pdf/৩৯৫

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


পূর্ণ সুন্দরবনের মধ্যে গিয়া দুই-একদিন বাস করিতে লাগিলাম। ইহার উপরে আমাকে ম্যালেরিয়াতে ধরিল । ঘন-ঘন জ্বর হইয়া লিভারে বেদন দাড়াইল । লিভারে ক্লিন্টার দিয়া, ম্যালেরিযার চিকিৎসা করিয়া। তদুপরি পূবে ওক্ত কাৰ্য সমুদয় চলাইতে লাগিলাম । গ্ৰাম সংস্কারের চেষ্টা। পূর্বোক্ত বিষয়গুলি ভিন্ন আমাকে অব ও কয়েক প্রকার DLS0SLDBS BLLL LL DDS DD BDDDSDSSgKKSDDSD SLDDSDK EEkSgDSSBBDD DSSJS KBDD CBBD KBSDBD DBDS DDSDDS BBtBB BsJs KSEitti BDBDB DDD KD BBDSDD কলিকাতার দক্ষিণ উপনগর খাতা বেহালা প্ৰভৃতি গ্রামের সঠিত এক মিউনিসিপ্যালিটিতে SBDBB DDDLDDSS HBTiBSBBg SBOBB Y BDB BD SDD SDSDDSDBLYSDStDBBkEDS eKBDST KSLBDD KK0BDt BSBDBDSLSDBOBt S ESDD BB iiS BBS0LSSgDBBBBB টfাক্স না দিলে তাহদের ঘটিবাটি নিলাম। ই ই: , কিন্তু দশ বৎসরের মধ্যে "1হাদের SSgLBB D0LLS aK D tYS KSDD uSSDS SEEDS SSSS S AiE uDDaa DBSDS BBBB DDDSL SgD Du D BJDS D BD SS BBKB LDtBtDSgtttBBLD BBDuD BBDDS S S BBBBBBS DBB S DDD S DBBBSDD DBDBJDSBiDDDD টাকা সেইদিকেই ব্যয় হইতেছে । ইহা আমার বড় অন্যায় বোধ হইল। আমি এহ অবস্থা ঘুচাহবার জন্য সঙ্কল্প করিয়া সোমপ্রক। শে লেখনী ধারণ করিলাম, সোমপ্ৰকাশের বাপ্তিরের পাঠক গণ বিরক্ত হইয়া যাইতে লাগিলেন । কাগজে লিখিয়া সন্তুষ্ট না হইয়া, “আমি স্কুলগৃঙ্গে গ্রামবাসী দিগকে ডাকিয়া এ বিষয়ে আন্দোলন আরম্ভ করিলাম । বহু জনের স্বাক্ষর করাইয়া কর্তৃপক্ষের নিকট এক "অপেন্দন প্রেরণ করিলাম। যদি ও এই সকল আন্দোলনের ফল হরিনাভি ত্যাগ করিবার পূর্বে আমি দেখিয়া আসিতে পারি নাই, তথাপি সুখের বিষয় এই যে, ইহারই ফলে বুজি পুৱা প্ৰভৃতি গ্রাম বেহালা হইতে পৃথক হইয়া এক স্বত্র স্ত্র মিউনিসিপ্যালিটি ৰূপে পরিণত হইয়াছে। এরং গ্রামের অবস্থা অনেক ফিরিয়াছে । আমি এই সময়ে আর এক বিষয়ে আন্দোলন উপস্থিত কপি, এবং ঈশ্বর ধ্রুপায় তাহাতেও কৃতকাৰ্য হই । সোমপ্রকাশে লিখিতে আরম্ভ করি যে, রাজপুর প্রভৃতির স্থায় ম্যালেরিয়া প্ৰপীড়িত গ্ৰাম সকলের মধ্যে একটি গবর্ণমেণ্ট চ্যারিটেবল ডিসপেনসারি থাকা উচিত। আমি হরিনাভিতে থাকিতে থাকিতেই গবৰ্ণমেণ্ট এ বিষয়ে মনোনিবেশ করেন। প্ৰথম ডাক্তার ও ঔষধের বাক্স আমার নিকট প্রেরিত হয় । আমি ভাক্তার মহাশয়কে ও ঐ ডাক্তারখানাকে হরিনাভির এক ভদ্রলোকের বাহির বাড়িতে স্থাপন করি। পরে সেই দাতব্য চিকিৎসালয়ের অনেক উন্নতি হইয়াছে। SO