পাতা:আত্মচরিত (সিগনেট প্রেস) - শিবনাথ শাস্ত্রী.pdf/২৯৫

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


এসেছিলেন। কিন্তু বাঙলাদেশে ইংরেজী শিক্ষা প্রচারের কাজে সহায়তা করার জন্য সমরণীয় হয়ে আছেন। রামমোহন রায় এবং কয়েকটি ইংরেজ ভদ্রলোকের সঙ্গে একত্রে তিনি হিন্দ কলেজ প্রতিস্ঠা এবং পাঠ্যপািস্তক প্রচারের জন্য ‘স্কুলবকে সোসাইটি’ স্থাপন করেন। তাঁর উৎসাহে কলকাতার নানাসস্থানে আরও কয়েকটি ইংরেজী ও বাংলা বিদ্যালয় স্থাপিত হয়। বিখ্যাত ‘হেয়ার স্কুল” এই হিতৈষী ব্রিটিশ ভদ্রলোকের নামের সমিতি বহন করছে। মতু্য ১৮৪২ ৷৷ থিওডোর পাকার ; জন্ম ১৮১o । আমেরিকার বিখ্যাত ধৰ্মপ্রচারক। ইউনিটারিয়ান মতাবলম্বী হয়েও তিনি ছিলেন ব্যক্তিবাদী। আমেরিকায় দাসত্ব প্রথা উচ্ছেদকলেপ যে যে আন্দোলন হয় তাঁর অন্যতম প্রধান নেতা ছিলেন। রচনাবলী : “এ ডিসকোয়স অভ ম্যাটারস প্যােরটেনিং টা রিলিজান” (১৮৪১), ‘স্যরামানস অভ দি টাইমস’ ইত্যাদি। কঠোর পরিশ্রমের ফলে ভগনস্বাস্থ্য হয়ে ১৮৮৮ সালে এই মনীষীর মাতুত্যু श् । LDDB DDDDB S BDBDBDD DBDDDDSBB DLDDD SSSDB L SJL0S0 DBLLLuDD DD কলেজ এবং পরে লন্ডন ইউনিভাসিটি কলেজের অধ্যাপক । কান্ডিন্যাল নিউম্যান-এর বিপরীত ধমৰ্শমত পোষণ করতেন। তিনি বিশ্ববাস করতেন যে ইতিহাসে যেসব বিভিন্ন ধমমতের উল্লেখ আছে তার সমস্ত প্রধান বৈশিস্ট্য সমন্বিত একটি ধমমতের প্রবতন প্রয়োজন । ১৮৫৩ সালে তাঁর বিখ্যাত গ্রন্থ ‘ফেজেজ অভ ফেইথ’ প্ৰকাশিত হয়। বাথ ; জন্ম ১৮২৯। স্যালভেশন আমির প্রতিস্ঠাতা এবং এই প্ৰতিস্ঠানের প্রথম ‘জেনারেল’। তাঁর পত্র উইলিয়াম ব্রামওয়েল বােথ—১৯১২-২৮ পর্যন্ত স্যালভেশন उभार्गाद्र '८ख्झनाgद्रव्ल' छCव्जन्म । ব্ৰাডাল : জন্ম ১৮৩৩, ২৮শে সেপ্টেম্বর। সমাজতন্ত্রবিরোধী সমাজসংস্কারক। পালামেণ্টের সদস্য নির্বাচিত হয়েও শপথ গ্রহণ করতে অস্বীকার করায় দাবার তাঁর নির্বাচন বাতিল হয়ে যায়। অবশেষে তৃতীয়বার নির্বাচিত হয়ে তিনি শপথ গ্রহণ করতে স্বীকার করেন। এ্যানি বেসান্ত-এর সঙ্গে একত্রে দি ফ্রটস অভ ফিলজফি নামে পস্তিকা প্রকাশ্বের জন্য তাঁর ছ'মাস কারাদন্ড এবং ২০o পাউন্ড অর্থদণ্ডড হয়। পথিবীতে অতিমাত্রায় জনসংখ্যা বন্ধির নিরসন প্রসঙ্গ এই পাস্তিকার আলোচ্য বিষয়। মহত্যু ১৮৯১ খন্টাবেদ, ৩০শে জানিয়ারি। মনিয়ার উইলিয়ামস (স্যর) : জন্ম ১২ই নভেম্বর, ১৮:১৯, বম্পিবাইতে। হেইলিবেরী এবং পরে অক্সফোডো সংস্কৃতের অধ্যাপক ছিলেন। ‘ইন্ডিয়ান ইনসটিটিউট’ প্ৰতিস্ঠিত হয় প্রধানত তাঁরই উদ্যোগে। সংস্কৃতের ব্যাকরণ এবং অভিধান রচনা করেছেন। রচিত গ্রন্থাবলী : “রডিমেণ্টস অভ হিন্দ স্থানী’ (১৮৫৮), ‘ইন্ডিয়ান এপিক পোয়েট্ৰি’ (১৮৬৩), ‘ইন্ডিয়ান উইজডম’ (১৮৭৫), ‘হিন্দইজম’ (১৮৭৭), ‘মডান ইন্ডিয়া’ (১৮৭৮), রিলিজাস থটস অ্যান্ড লাইফ ইন ইন্ডিয়া’ (১৮৮৩), ‘বদ্ধিজম’ (১৮৯০) । 'শকুন্তলা’ এবং আরো কয়েকটি সংস্কৃত কাব্যের সম্পাদনা করেছেন । RSS