পাতা:আত্মচরিত (৩য় সংস্করণ) - শিবনাথ শাস্ত্রী.pdf/২৪৬

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


8 obፖ শিবনাথ শাস্ত্রীর আত্মচারিত [ ৯ম পরিঃ বিরাজমোহিনী তঁহাদের সহিত হরিনাভিতে গিয়া তাহদের পরিবারে বাস করিতে লাগিলেন। প্ৰসন্নময়ী লক্ষ্মীমণি সহ আমার সঙ্গে ভবানীপুরে আসিলেন। আমি শনিবার হরিনাভিতে যাইতাম, রবিবার সোমপ্রকাশ সম্পাদন করিতাম, সোমবারে ভবানীপুরে ফিরিয়া আসিতাম। এইরূপে কিছু দিন গেল। অবশেষে আমি আমার কাজের সুবিধার জন্য মাতুলের কাগজ ও ছাপাখানা ভবানীপুরে তুলিয়া আনিলাম। সোমপ্রকাশে এক ফরমা ইংরাজী সংযোগ করিয়া ইহার উন্নতি সাধন করিবার চেষ্টা করিতে লাগিলাম। প্রেসেরও অনেক উন্নতি করিলাম । ভবানীপুরে নূতন ব্ৰাহ্মসমাজ স্থাপন।—এতদ্ভিন্ন ভবানীপুরে আসিয়াই কতিপয় ব্ৰাহ্ম বন্ধুর সহিত সমবেত হইয়া একটি ব্ৰাহ্মসমাজ স্থাপন করিলাম। আমার নিজ ভবনেই এই সমাজের সাপ্তাহিক উপাসনা হইত। আমাকেই অধিকাংশ দিন আচাৰ্য্যের কাৰ্য্য করিতে হইত। মধ্যে মধ্যে কলিকাতা হইতে নগেন্দ্র বাবু প্রভৃতি কোনও কোনও বন্ধুকে আনিয়া উপাসনা করাইতাম । সিন্দুরিয়াপটী ব্ৰাহ্মসমাজের আচাৰ্য্যের যে ভার ছিল, তাহা আমি হরিনাভিতে থাকিবার সময়েও রাখিয়াছিলাম, এবং অনেক সময় জলে ঝড়ে দুৰ্য্যোগে হরিনাভি হইতে আসিয়া সম্পন্ন করিতাম ; তাহা এই সময়ে আমার বন্ধু কেদারনাথ রায়ের প্রতি অর্পণ করি। তিনি ইহার পর অনেক দিন ঐ কাৰ্য্য করিয়াছিলেন। কলিকাতা ভারতবর্ষীয় ব্ৰাহ্মসমাজে নানা আন্দোলন। স্ত্রীশিক্ষা।-আমার হরিনাভি বাস কালে, কলিকাতাতে ভারতবর্ষীয় ব্ৰাহ্মসমাজ মধ্যে নানা আন্দোলন চলিতেছিল। ভবানীপুরে আসিয়া আমি সেই আন্দোলন স্রোতে পড়িয়া গেলাম। ইহার কোন কোন আন্দোলন মি ভারত আশ্রমে থাকিবার সময়েই প্ৰথম উঠিয়াছিল। মন্দিরে পরদার [াহিরে মেয়েদের বসা ও মেয়েদের শিক্ষা, এই দুই- বিষয়ে কেশব বাবুর