পাতা:আত্মচরিত (৩য় সংস্করণ) - শিবনাথ শাস্ত্রী.pdf/৩৯০

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


७8२ শিবনাথ শাস্ত্রীর আত্মচারিত [ ১৬শ পরিঃ ব্ৰাহ্মগণ সন্ত্রস্ত হইয়া পড়িলেন। নববিধানী বন্ধুগণ স্বীকার করুন আর নাই করুন, আমরাও তঁহার রোগ মুক্তির জন্য প্রার্থনা করিতে লাগিলাম। ১৮৮৩ সালের গ্রীষ্মকালে তিনি বায়ু পরিবর্তনের জন্য সিমলা শৈলে গমন করিলেন। কিন্তু সেখানে তঁর স্বাস্থ্যের স্থায়ী উপকার হইল না। ঐ সালের অক্টোবর মাসে তিনি কলিকাতায় ফিরিয়া আসিলেন। আমরা সংবাদ পাইলাম, তিনি অসুস্থ অবস্থাতেই ফিরিয়া আসিয়াছেন। সংবাদ পাইবামাত্র আমি তঁহাকে দেখিতে গেলাম। আমাকে দেখিয়া তিনি আনন্দিত হইলেন। তঁর রোগের বিবরণ সব বলিলেন। পায়ের কাপড় সরাইয়া পা দেখাইয়া বলিলেন, “দেখ, আমার পায়ের গুলি কখনও এত সরু হয় নাই ; এইটাই কুলক্ষণ।” আমি বলিলাম, “ঈশ্বর করুন, এ যাত্র আপনি সারিয়া উঠুন।” তার পর তিনি যত দিন বাচিয়া ছিলেন, আমি মধ্যে মধ্যে গিয়া দেখিয়া আসিতাম। র্তাহার পত্নীর মুখ যখন দেখিতাম, তখন চক্ষের জল রাখিতে পারিতাম না। কি সুখেই ভারত আশ্রমে ছিলাম, আর কি দুঃখই পরে ঘটিল, তাই মনে হইত। আমরা পরোক্ষ ভাবে তেঁাহার মৃত্যুর অন্যতম কারণ, এই মনে হইয়া সেই দুঃখ ঘনীভূত হইত। পরে শুনিলাম যে, চিকিৎসকগণ র্তাহাকে মাংসের যুষ খাওয়াইতেছেন ; তাহাতে র্তাহার মূত্রে আলবুমেন ( albumen, ) হইয়া, যকৃতে গ্রাভেল ( gravel ) দেখা দিয়াছে। শুনিয়া ছুটিয়া দেখিতে গেলাম। v^ গিয়া কমল কুটীরে প্রবেশ করিয়াই তাহার। আৰ্ত্তনাদ শুনিলাম। রোগীর এরূপ আৰ্ত্তনাদ অল্পই শুনিয়াছি। নিকটে গিয়া দেখি, তিনি যন্ত্রণাতে ছটফট করিতেছেন। শয্যাতে এক পাশ্বে স্থির থাকিতে পারিতেছেন না। সে যন্ত্রণা, সে আৰ্ত্তনাদ, সে কাতরানি দেখিয়া চক্ষের छल ब्रांथिड *ांख़िवांभ न । uDS SBD S sDBD S BDBDDS S BDB uBBDD BB DBB DD