পাতা:আত্মচরিত (৩য় সংস্করণ) - শিবনাথ শাস্ত্রী.pdf/৪৪০

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


শিবনাথ শাস্ত্রীর আত্মচারিত [ ১৮শ পরিঃ سامرای বিদ্যালয়ঃ স্বালয়মেত্য সাম্প্রতিম সমৃদ্ধ-কীৰ্ত্তি ভুবনে ভবিষ্যতি।। তথাহি সানে মলয়াস্ত নান্যতঃ &९ श्लभ८ञ्ज्ञांशङि 5न्नभः ॥ অর্থাৎ কলেজ। আপনার বাড়ীতে আসিয়া উন্নতি লাভ করিয়া জগতে বিখ্যাত হইবে। তাহা ত হইবেই, কারণ মলয় পর্বতের সানুদেশেই চন্দন বৃক্ষ বাড়িয়া থাকে। এই কবিতাটি আবৃত্তির পর আমাদের পুরাতন সম্বন্ধ যেন আবার জাগিয়া উঠিল। তিনি আমার কাছে বসিয়া সংস্কৃত কলেজ, জয়নারায়ণ তর্কপঞ্চানন, প্রেমচাঁদ তর্কবাগীশ প্রভৃতির কথা বলিতে লাগিলেন, এবং কেন্বিজে দেখিবার উপযুক্ত কি আছে তাহাও জানাইলেন। দুঃখের বিষয় এই দুৰ্য্যোগের জন্য সমুদয় দেখিতে পাইলাম না। কিন্তু বহু দিন পরে সাধু কাউয়েলের সহিত সম্মিলনে যেন সকল অভাব পূর্ণ করিল। সেই সম্মিলন আমার নিকট চিরস্মরণীয় হইয়া রহিয়াছে। জেমস মার্টিনো।-অপর যে যে স্মরণীয় মানুষ সেখানে দেখিয়াছিলাম, এবং র্যাহাদিগের সহিত পরিচিত হইয়া আপনাকে উপকৃত বোধ করিয়াছিলাম, তঁহাদের বিষয় কিছু কিছু উল্লেখ করিতেছি। প্রথম উল্লেখযোগ্য ব্যক্তি, ইউনিটেরিয়ানদিগের নেতা ও গুরু আচাৰ্য্য জেমস মাটিনো। তিনি নিজের ধৰ্ম্মজ্ঞান, চিন্তাশক্তি ও সাধুতার দ্বারা জগতে অমরত্ব লাভ করিয়াছেন । তঁহার বিষয়ে আমি আর অধিক কি বলিব ? তেঁাহার সঙ্গে এক দিন মাত্র দেখা হইয়াছিল, কিন্তু সেই এক দিন এ জীবনে চিরস্মরণীয় দিন হইয়া রহিয়াছে। আমি যখন লণ্ডনে, তখন ডাক্তার মাটিনো সকল কাৰ্য্য হইতে অবস্থিত হইয়া স্কটলণ্ডের কোন নিভৃত প্রদেশে বাস করিতেছিলেন। ইতিমধ্যে অক্সফোর্ড