পাতা:আত্মচরিত (৩য় সংস্করণ) - শিবনাথ শাস্ত্রী.pdf/৫৫৯

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


শিষ্ট), প্রসন্নমস্ত্রীর উদারতা, কাৰ্য্যদক্ষতা, ও হৃষ্টচিত্ততা 8ፍsፃ · আশ্ৰয় পাইয়াছে, তাহারা পরে যেখানেই যাউক, যেখানেই থাকুক, আমার বাড়ী তাহদের বাপের বাড়ীর মত’ হইয়াছে। প্ৰসন্নময়ী সহস্ৰ কাজের মধ্যে তাহদের সংবাদ লইয়াছেন, অর্থের দ্বারা সহায়তা করিয়াছেন, ও তাহদের ভদ্রাভদ্রেব প্রতি সতত দৃষ্টি রাখিয়াছেন। মৃত্যুশয্যাতে পড়িয়াও তাহদের অনেকের নাম করিয়াছেন ও দেখিতে চাহিয়াছেন। সত্য সত্যই পরকে আপন করা এরূপ দেখা যায় না । দ্বিতীয় গুণ, গৃহকাৰ্য্যে দক্ষতা । যাহারা তঁহাকে দেখিয়াছেন, সকলেই জানেন, তিনি আলস্য কাহাকে বলে জানিতেন না। যত দিন শরীরে শক্তি ছিল, রাধুনী রাখিতে দিতেন না ; নিজ হস্তে পাক করিয়া সন্তানদিগকে খাওয়াইতে ভালবাসিতেন। এ কথা বলিলে বোধ হয় অত্যুক্তি হয় না যে, আমার সন্তানেরা কখনও তাঁহাদের মাতাকে ঘুমাইয়া থাকিতে দেখিয়াছে কি না সন্দেহ ; অর্থাৎ তাহারা নিদ্রিত হইলে তিনি শয্যাতে যাইতেন, এবং তাহারা উঠিবার পূর্বেই গাত্ৰোখান করিয়া গৃহকাৰ্য্য অৰ্দ্ধেক সারিয়া ফেলিতেন। সাধনাশ্রমে আসার পর প্রাতে ৮টার পূর্বে রাধিয়া অন্ন ব্যঞ্জন প্ৰস্তুত রাখিয়া যথাসময়ে উপাসনায় যোগ দিতেন । তৃতীয় গুণ, কাজের শৃঙ্খলা। তিনি অনিয়ম সহস্থ করিতে পারিতেন না। রন্ধনশালায় বা ভাড়ার ঘরে সর্বদা একটি ঘড়ি রাখিতেন। ঘড়ির নিয়মানুসারে সকল কাজ করিতেন। আমাদের বন্ধু বান্ধব সকলে বলিতে পারিতেন, তিনি কোন ঘণ্টায় কি কাজ করিতেছেন। চতুর্থ গুণ, হৃষ্টচিত্ততা। তিনি যে এত পরিশ্রম করিতেন, এত দারিদ্র্যে বাস করিতেন, সংসারের এত ভার বহিতেন, তাহার মুখ দেখিলে তাহা বুঝিতে পারা যাইত না। সৰ্ব্বদা প্ৰফুল্ল থাকিতেন, আর গান করিতেন, বা মুখে মুখে কোনও ছড়া আবৃত্তি করিতেন। গাইয়া হাসিয়া অভিনয় করিয়া পরিবারস্থ সকলকে চির-আনন্দে রাখিতেন। 9R