পাতা:আত্মচরিত - শিবনাথ শাস্ত্রী.pdf/১৩৫

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


visfy y দুষ্ট জনে গাড়িতে বসিয়া শ্ৰীনাথবাবুদের গলি হইতে বাহির হইয়া বড় রাস্তায় আসিলে বিদ্যাসাগর মহাশয় বলিলেন, “কোথায় নিয়ে যাচ্ছি, জান ? তোমার ছেলে উপেন পীডিত হ’য়ে কাশী থেকে এসে এক বন্ধুর বাসায় উঠেছে। তার ব্যায়রাম বড় শক্ত, বঁাচে কি না সন্দেহ। সে মৃত্যুশয্যায় পড়ে তোমাকে দেখতে চেয়েছে। তাই তার বন্ধুর অনুরোধে তোমাকে নিতে এসেছি।” এই কথা শুসিয়া শ্ৰীনাথবাবু রাগিয়া উঠিলেন। বলিলেন, “কোচম্যান গাড়ি ফেরাও ।” তাহা শুনিয়া বিদ্যাসাগর মহাশয় বলিয়া উঠিলেন, “গাড়ি থামাও, গাডি থামাও, আমি নাম্ব।” কোচম্যান গাডি থামাইলে তিনি যখন নামিতে যান, তখন শ্ৰীনাথবাবু তার হাত ধরিয়া বলিলেন, “এ কি ? তুমি নাম যে ?” বিদ্যাসাগর মহাশয় বলিলেন, “আমায় ছাড, ছাড় । তোমার সঙ্গে আমার এই শেষ বন্ধুতা । ছেলে যতই বিরাগভাজন হোক, সে মৃত্যুশয্যায় পড়ে বাবাকে দেখতে চেয়েছে ; তুমি কিরূপ বাপ যে এমন সময়েও দেখা দিতে চাও না!” এই কথা শুনিয়া শ্ৰীনাথবাবু ধীর হইয়া বসিলেন এবং কোচDDDLD K BBD DBBDDS SL D DDDL DDDL DODBB শ্ৰীনাথবাবু পুত্রকে দেখিয়া চলিয়া গেলে বিদ্যাসাগর মহাশয়ের মুখে এই বিবরণ শুনিলাম । যাহা হউক, পিতা-পুত্রে দেখা হইল। উপেন পিতাকে কি বলিলেন, জানি না । আমি সেখানে ছিলাম না । তিনিলাম, মাপ চাহিয়াছিলেন । তাহার প্রমাণও দেখিলাম। তাহার পরে তাহার পিতা তাহাকে অর্থসাহায্য করিতে লাগিলেন। শ্ৰীনাথবাবু চলিয়া গেলে বিদ্যাসাগর মহাশয় দাড়াইয়া আমাকে উপোনের অবস্থার বিষয় প্রশ্ন কৱিতে লাগিলেন। তাহার কপর্দকমাত্ৰও সম্বল নাই শুনিয়া কঁাদিয়া ফেলিলেন । আমার হাতে ১০২ টাকা দিয়া বলিয়া গেলেন, “দেখিস, ওর শ্ৰী-পুত্ৰ যেন না ক্লেশ পায়। টাকার অভাব হ’লে আমাকে বলিস। তুই কিরূপে এত ব্যয় দিবি৷ ” যার প্রতি এত জাতক্রোধ ছিলেন, তাহারই দুঃখের কথা শুনিয়া তাহার চক্ষে জলধারা পড়িল ; कि ग्रा ! এখানে একটা কথা উল্লেখযোগ্য আছে। এই সময়ে আমি সর্বদা উপোনের সাহায্যের জন্য বদ্ধপরিকর হইতাম বলিয়া আমাকে অনেকে উপহাস বিদ্রুপ ও ভৎসনা করিতেন। তঁহাৱা তাহার বিরুদ্ধে গোপনে কি শুনিয়াছিলেন,