পাতা:আত্মজীবনী ও স্মৃতি-তর্পন - জলধর সেন.pdf/৮৮

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


切r8 আত্মজীবনী ও স্মৃতি তৰ্পণ তখন রাজপ্ৰতিনিধি লর্ড রিপণ এদেশ ত্যাগ করে’ যান। তিনি দাৰ্জিলিং বেড়াতে গিয়েছিলেন। সেখান থেকে কলিকাতায় ফিরে এসেই দেশে 瓦研可憎出 যেদিন তিনি দাঞ্জিলিং থেকে কলিকাতায় যান, সেদিন আমরা একটা গান ছাপিয়ে নিয়ে সাদল বলে পোড়াদহ ষ্টেশনে যাই । লাট সাহেবের স্পেশাল ট্ৰেণ পোড়াদহে দু’মিনিট থামবার কথা-কিন্তু গাড়ী পৌছতে না পৌছতেই, আমরা প্লাটফরমে দাড়িয়ে সেই গান গাইতে আরম্ভ করি । স্পেশাল ট্রেণের সাহেবরা, হয়ত লাট সাহেব স্বয়ংও গাড়ী থেকে মুখ বাডিয়ে, এই অপূর্ব দৃশ্য দেখতে থাকেন। তাতে স্পেশাল ট্ৰেণ আরও তিন মিনিট দাড়িয়ে থাকে । আমরা গানটি বাংলায় ছাপিয়ে নিয়ে গিয়েছিলাম এবং তার ইংরাজী অনুবাদও ছাপিয়েছিলাম। স্পেশাল ট্রেণের প্রত্যেক কামরায় সেই ইংরাজী-বাংলাছাপানো কাগজ আমরা। ১৫২০ খান ফেলে দিয়েছিলাম । তার পরদিনই আমি কলিকাতায় গিয়ে একখানি আবেদনপত্রের সঙ্গে ছাপান গান গেথে নিয়ে গভর্ণমেণ্ট হাউসে গিয়ে বড়লাট বাহাদুরের চীফ সেক্রেটারির নিকট পাঠাই । কয়েকদিন পরেই প্ৰাইভেট সেক্রেটারী মহাশয় বিশেষ আনন্দ প্ৰকাশ করে” আমাদের সেই পত্রের উত্তর দেন। নিম্নে সেই বাংলা গানটি উদ্ধৃত করে” দেবার প্রলোভন আমি সম্বরণ করতে পারলাম না । “দেশে চলিলে মহামতি রিপণ ! রাম-রাজ্য-সম প্ৰজা কবিয়ে পালন । ১ । সুশাসনে এ ভারতে, ছিল প্ৰজা নিরাপদে ( তব ন্যায়পরতায়, সাম্যনীতি) তোমার বিরহে কঁদে নরনারীগণ । ২ । আমরা কাঙ্গাল বেশে, এসেছি তব উদ্দেশে, ( হের কৃপাবষয়নে, সাধারণ দেশের দশা।) দেশের দশা প্ৰকাশ বেশে কর নিরীক্ষণ । ৩ । হৃদয়ের কৃতজ্ঞতা, দেখাতে নাহি ক্ষমতা, ( আমরা পল্লীবাসী হে ), (জ্ঞান অর্থহীন) (ধর চক্ষের জল হে ), (অন্য সম্বল নাই ) রাজভক্তি সরলতা ভারতবাসীর ধন।