প্রধান মেনু খুলুন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


ག་སྐྱེས་ཞྭ་མོ་ཝ་ 1] অনাদিশপুত্ৰ 'তাঁর তরবারিতে আমার তরবারিতে অনেক প্রভেদ, তার হাতের জোর চেয়ে আমার হাতের জোর ঢের বেশী। . তক্ষশীল। কৰ্ত্তব্যবান প্ৰভুভক্ত তুমি সামন্ত! তোমার বীরত্ব জানি , কিন্তু আর কোন ফল হবে না । সামন্ত । না হোক ; যুদ্ধ করতে পেয়েছি, এই যথেষ্ট। যে ভাবেই গাৰ্ক, রাজা দেচে আছে-এ সংবাদের মূল্য নাই। [ সৈন্যগণকে বলিলেন ] সুৈস্যগণ! পথশ্রমে বড় পরিশ্রান্ত আছ-না? বিশ্রাম করবে একেবারে মৃত্যুর কোলে। নাও, এখন কণৌজের দ্বারে দাড়িয়ে সেই রকম একটা সিংহনাদ কর, যেন কণোজ-প্ৰাসাদ তার প্রতিধ্বনিতে কেঁপে ওঠে-যেন তার অধিপতি সিংহাসন হ’তে ট'লে শুল্কমুখে মাটীর উপর বসে, পড়ে—আমাদের রাজা যে অবস্থাতেই থােক, যেন এই শব্দে তার বুকখানা উল্লাসে দ্বিগুণ স্ফীত চ’যে যায়। ব’ল-জয় বঙ্গাধিপ আদিশূরের জয় ! সৈন্যগণ। জয় বঙ্গাধিপ আদিশূরের জয়! তক্ষশীল। থাম সন্মুক্তমন্ত ! নিৰ্ব্বোধের মত কাজ কবিছে। কেন ? ৰাতে মৃত্যু নিশ্চিত, তেমন ক্ষেত্রে ঝাপ দেয় ? বলবে, রাজা গেছে—আমাদের জীবন নিয়ে কি ফল? তবু তুমি বেঁচে থাকলে যদি কখনও রাজার উদ্ধার হতো, তুমি গেলে আশা-ভরসা একেবারেট নিৰ্ম্মল হ’য়ে বাবে। কি করতে হবে, আমায় ভাবতে দাও। এক তোমার অভাবে রাজা বন্দী, তাঁর পার্শ্বরক্ষা করবার মত একজন কেউ থাকলে এমন দুর্ঘটনা ঘটতে না। তবেই তুমি আবার বিনা সাহায্যে এক অগ্রসর হও কি সাহসে ? সৈন্যসহ সায়নাদিত্য উপস্থিত হইলেন। সায়ন । কোন ভয় নাই । সেনাপতি ! তুমি অগ্রসর হও, আমি তোমার পাশ্বরক্ষা করবো। 4Y