পাতা:আদিশূর ও বল্লালসেন.pdf/৬৫

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


«- - আদিশূর ও বল্লালসেন। সেনবংশীয়দিগকে চন্দ্রবংশীয় ক্ষত্রিয় সিদ্ধান্ত করেন। এবং উপরোক্ত শ্লোক প্রমাণরূপে উল্লেখ করেন। কিন্তু চন্দ্রের একনাম “ ওষধিনাথ,” “ ঔষধনাথ ” নহে। শব্দকল্পদ্রুম অভিধানে “ ওষধিঃ (অর্থ ) ফলপাকান্ত বৃক্ষাদিঃ । কদলিধান্যমিত্যাদিঃ ” লিখিত আছে, # এবং “ ওষধীপতি ” অর্থ “ চন্দ্র ” লেখা আছে। ফলপাকান্ত বৃক্ষাদি চন্দ্রকিরণে বৰ্দ্ধিত হয় হেতু, চন্দ্র, “ ওষধিনাথ ” বা “ ওষধীশ ” সংজ্ঞা প্রাপ্ত হইয়াছেন । “ ঔষধ ” অর্থ রোগনাশক দ্রব্যাদি, এবং রোগনাশক দ্রব্যাদির অধিপতি, ঔষধ জ্ঞান বিশিষ্ট চিকিৎসক অথবা বৈদ্যকেই বুঝায়। “ অতএব ঔষধনাথ বংশ ” অর্থ বৈদ্যবংশ, চন্দ্রবংশ নহে। সেনবংশীয়ের যখন লক্ষণসেন প্রদত্ত তাম্রশাসনে স্পষ্টাভিধানে বৈদ্যবংশীয় বলিয়া উল্লিখিত হইয়াছেন, তখন তাহারা ক্ষত্রিয় অথবা অন্য কোন জাতি হইতে উৎপন্ন হইয়াছেন, ইহা কখনই অনুমান করা যাইতে পারে না । - যে সকল প্রমাণের উল্লেখ করা গেল তাহাতে আদিশূর এবং সেনবংশীয়েরা যে বৈদ্য জাতি হইতে উৎপন্ন হইয়াছিলেন,এবং ক্ষত্রিয় ছিলেন না, সংস্থাপন হইতেছে । রাজসাহীর প্রস্তর ফলক এবং কেসবসেন প্রদত্ত তাম্রশাসন দ্বারা তাহtদিগের জাতি বিনির্ণয় হইতে পারে না, তাহ পূর্বেই প্রতিপন্ন করা হইয়াছে। অতএব কুলজি গ্রন্থের প্রমানের এবং বংশ পরম্পরাগত किन्नाडीज़ ভ্রম স্পষ্টাভিধানে সংস্থাপন করিতে © (איcאיskיא יליAssליssיsאיי