পাতা:আমি অমল আধারে.pdf/৪০

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


কেউ তো নেই কেউ তো নেই। কাকে ডাকবো জানলা খালে, ধন ধন করছে শ্রান্ত শিথিল মাঠের শরীর, রোদ কপিছে হাওয়ার ঢেউয়ে ফলে ফলে, অবিশ্ববাসী সময় গভীর। নিঝম বাড়ী : ভাসছে, বুঝি ভেসেই গেল— নিঃস্ব স্রোতে দলছি আমি, কোথায় যাবো, দুহাত আছে, এলোমেলো শরীরটা কার ছায়ায় রেখে চোখ মেলাবো। সাড়া দেয় না। দেবে না কেউ—দরের মাঠে গড়ায় আলো, আকাশ ছোবে ; একলা হাঁটে কেউ কি ? না তো—সন্য ডোবে। একলা বাড়ী, অশথগাছটা, একলা আমি— আসবে না কেউ অন্ধ ঘরে কলরবে, শব্দ করে সিড়ি বেয়ে উঠি নামি : হাজার হাজার বছর ধরে অন্ধ ঘরে বন্ধ ঘরে বাঁচতে হবে। ՋO