পাতা:আয়ুর্ব্বেদ সারসংগ্রহম্‌ - তৃতীয় ভাগ.pdf/৫৬

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


আয়ুৰ্ব্বেদ সারসংগ্ৰহম্। * > ৯ রোগীর এই সকল লক্ষণ হয় এবং নিজে অত্যন্ত দুর্বল অথচ হিঙ্কা শ্বাস, পিপাসা, দাহ ও তন্দ্র প্রভৃতি যুক্ত, এতাদৃশ রোগীকে চিকিৎসক সকলে পরিত্যাগ করেন । ১২ অতিসারের নানা কারণ কথন । শরীরিণী মতীসারঃ সন্তুতো যেন কেনচিৎ। দোষীণামেবলিঙ্গানি কদাচিন্নাতি বর্ততে। স্নেহাজীর্ণ নিমিত্তস্তু বহু শূল প্রবাহিকঃ বিসূচিকা নিমিত্তস্তু চান্তে৷ জীর্ণ নিমিত্তজঃ। বিষার্শঃ ক্রিমি সন্তুতো যথাস্বং দোষ লক্ষণঃ আমি পক ক্রমং হিত্বা নাতিসারে ক্রিয়ায়তঃ । অতঃ সৰ্ব্বাতিসারাস্তুজ্ঞেয়াঃ পঙ্কাম লক্ষণৈঃ ॥ ১৩ দেহধারিদিগের অতিসার যে কোন ফারণ বশত উৎপন্ন হয়, কিন্তু বাত্তাদির চিহ্ল সকলকে কখন লঙ্ঘন করিতে পারে না। ইহার তাৎপর্য্য এই অতিসারের কারণ অতিসার জন্মাইবার সমকালীনই বাতাদিকে দুষিত করে অর্থাৎ বিকৃত করে। স্থতাদির অজীর্ণ জন্য অতিসার উৎপন্ন হইলে অতিশয় শুলবিন্ধের ন্যায় পীড়া এৰং অত্যন্ত প্রবাহিকা ছয় অর্থাৎ সৰ্ব্বদ গুহদেশে কোৎ দিতে মনের প্রবৃত্তি হয়। বিষ জন্য,অৰ্শরোগ জন্য ওক্রিমি জন্য অতি সার হইলে ৰিষের, অর্শের ও ক্রিমির চিহ্ন প্রকাশ করে