প্রধান মেনু খুলুন

পাতা:আর্য্যদর্শন - দ্বিতীয় খণ্ড.pdf/১৯৩

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


* আৰ্য্যদর্শন। শ্রাবণ ১২৮২ । ত্রিকালের কোন পদার্থই ইহার মবিদিত নাই। ইনি অধীশ্বর অর্থাৎ সৰ্ব্ব, শক্তিমান ; দেবাদিদেব, অর্থাৎ সমুদয় দেবতা অপেক্ষ চিরজাত ও অধিকতরপুণ্যশালী ; এই সকল শব্দের প্রতিপাদ্য এইরূপ সিদ্ধপুরুষেরই অর্চনা করিয়া থাকে। উপরি-উল্লিখিত কয়েক প্রকার ব্যতীত সিদ্ধপুরুষের আরও চারি প্রকার গুণ থাকা আবশ্যক। তিনি তীর্থঙ্কর, অর্থাৎ সংসারপারাবারের তরণিস্বরূপ ; তিনি কেবলী, অর্থাৎ ভ্রমবিরহিত ও ও মনুষ্যাদির পূজাৰ্ছ ; তিনি জিন, অর্থাৎ রাগদ্বেষাদিবিরহিত আত্মেশ্বর ও সৰ্ব্বজয়ী। উল্লিখিত গুণ কয়েকটা সিদ্ধপুরুষ মাত্রেরই সাধারণ গুণ। এতদ্ভিন্ন জিন প্রভৃতি বিশেষ বিশেষ সিদ্ধপুরুষের বহুসংখ্যক গুণোপেত মহাপুরুষই সিদ্ধপুরুষ, জৈনেরা কোন প্রকার মানুষিক পরিবর্ত লক্ষিত । হয় না। তিনি ইচ্ছা হইলে মুহূর্তের মধ্যেই শতসহস্র মনুষ্য, দেবতা, ও অন্যান্য জীব । জন্তু একত্র করিয়া অল্পমাত্র স্থানের মধ্যে উহাদিগকে সমাবেশ করিতে পারেন। তাহার কণ্ঠস্বর বহুদূর হতে শ্রবণ করিতে পারা যায় উাহার অৰ্দ্ধমাগধী ভাষা সমুদয় জীবজন্তুর বুদ্ধিগোচর, প্রাণিমাত্রই তাছার কথাবার্তার ভাবগ্ৰছ করিতে পারে। র্তা হীর পৃষ্ঠদেশে স্থৰ্যমগুলের ন্যায় একপ্রকার সমুজ্জ্বল আলোক চিরপ্রদীপ্ত করিয়া দিদিগন্ত আলোকপূর্ণ করে। তিনি ৰে চিন্ময় ; তিনি অহং, অর্থাৎ দেবতা স্থান দিয়া বিচরণ করেন, তাহার চতু র্দিকে শতসহস্ৰ ক্রোশ পর্যন্ত রোগ শোক যুদ্ধবিগ্রহ, তুর্ভিক্ষ, মহামারী প্রভৃতি চির কালের জন্য তিরোহিত হয়। জৈনদিগের প্রথম জিনের নাম ঋষভদেব, ও শেষের নাম মহাবীর । ঋষভদেব, পাশ্বনাথ, মহা i অনন্যসাধারণ গুণের উল্লেখ আছে। এই সকল বিশেষ গুণের নাম অতিশয় | অর্থাৎ অলোকসাধারণ ও সৰ্ব্বলোকাতিগ গুণ, এই সকল অতিশয়ের মধ্যে কতক | গুলি জিনের শরীরবিষয়ক। জিনের বীর প্রভৃতি উপরিউক্ত গুণসমূহের অধিকারী ছিলেন মনে করিয়া জৈনেরা ইহঁাদিগকে মহাপুরুষ নামে নির্দেশ করিয়া থাকেন। এই মহাপুরুষদিগের মধ্যে কয় জন প্রকৃতপ্রস্তাবে বিদ্যমান ছিলেন, আর শরীর অসামান্য রূপলাবণ্যের আধার; শরীরের চতুর্দিকে নিরস্তুর মনোহর সৌরভ বিকীর্ণ হইতেছে ; তাহার রক্ত শ্বেতবর্ণ, | इच्छा তাহার শরীরের বর্ণও শুভ্ৰ ; গুহায় কেশপাশ আকুঞ্চিত ; কেশ আছে, তদর্শনে সজেই প্রতীত্তি হয়, যে . কয় জন জৈনগ্রন্থকার ও পুরোহিতদিগের কপোলকল্পিত আকাশকুসুমমাত্র তাঁহা । নির্ণয় করিবার জন্য কোন প্রকার ঐতি-1 হাসিক প্রমাণ পাওয়া ক্ষয় না। তৰে । পার্শ্বনাথ ও মহাবীর এই দুই জন ব্যতীত | অন্যান্য মহাপুরুষদিগের বিষয়ে ৱেশ | অসম্বন্ধ অলীক উপন্যাস সকল লিপিবদ্ধ |