প্রধান মেনু খুলুন

পাতা:আর্য্যদর্শন - দ্বিতীয় খণ্ড.pdf/৩১৭

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


woo 8 আৰ্য্যদর্শন | কাৰ্ত্তিক ১২৮২ । সংলগ্ন থাকিয়া প্রতিক্ষিপ্ত হয় । এই আকর্যণ ও প্রতিক্ষেপণ দ্বারা আমরা জানিতে পারি যে ঘর্ষিত অংশ তড়িদাক্রান্ত ( Ele| ctrified ) হইয়াছে। কিন্তু পরীক্ষা করিয়া দেথা হইয়াছে যে কাচ ও গাল উভয়ের ঘর্ষিত অংশ হইতে বিভিন্ন ধৰ্ম্মি তড়িৎ প্রতিক্ষিপ্ত করিবে গালার ঘর্ষিত অংশ তাহাকে অাকর্ষণ করিবে । সুবিধার জন্য এই দুই প্রকার তড়িৎ দুই পৃথক সংজ্ঞায় অভিহিত । কাচজ তড়িৎকে যৌগিক (Positive) ও অপর প্রকার তড়িৎকে বিয়োগিক (Negative ) বলে । ঘর্ষণ দ্বারা সকল বস্তুতেই নুনাধিক পরিমাণে উভয়ের অন্যতর তড়িৎ উদ্ভূত হইয়া থাকে। এই সকল প্রত্যক্ষ (Phenomena) বুঝাইবার জন্য তড়িতের প্রকৃতি সম্বন্ধে দুইটী মত কল্পিত হয়। একটা মতের আবিস্ক ফাঙ্কলিন। তিনি অনুমান করেন ইথরের ন্যায় এক প্রকার সূক্ষ্যতম, অ তী ক্রিয়, আতোলনীয় তরল পদার্থ সমস্ত জড় জগৎব্যাপিয়া রহিয়াছে। এই তলে।পদার্থ বস্তু বিশেষে বিশেষ ২ পরিমাণে থাকে । যখন এই নির্দিষ্ট পরিমাণের ব্যতায় না হয়, তখন বস্তু সহজ বা তড়িদনা ক্রান্ত (Unelectrified) fitt i afii i gi s কারণে এই পরিমাণে নুপালক হই। থাকে। পরিমাণ অধিক হইলে বস্তু যোগিক*f;stors (Positively electrified) s অল্প হইলে বিয়োগিক-তড়িদা ক্রান্ত হয়।

  • o ་་་་་་་་་་་་་་་་་་་་་ -

f উদ্ভূত হয়। কাচের ঘর্ষিত অংশ যে বস্তুকে । সেই বস্তুর ভিতর দিয়া বিপৰীত দিকে | এই মত অপেক্ষা দ্বিতীয় মন্তটা অধিক । সমাদৃত ও প্রচলিত। प्र ११|१" ठे झांद्र বিষয় অধিক না বলিয়৷ দ্বিতীয়ীির বিষয়ই বলা যাউক । - দ্বিতীয় মত। ডুফে (Dufiy) প্রথম, এই মত আবিষ্কার করেন। কিন্তু সাইNf3 ( Symmer རྡིཙཱ། མ་ সংস্কার করেন বলিয়া ইহা ভাৰ্ছার নামেষ্ট খাত। এই মতানুসারে পূৰ্ব্বোক্ত দুষ্ট বিভিন্ন প্রকার তড়িৎ, দুষ্ট বিভিন্ন প্রকার অতীন্দ্রিয় অতোলনীয় তরল পদার্থ বলিয়া অনুমিত হয়। এক প্রকারের তাড়িত তরল Tool ( Electric fluid ) of: watt প্রতিক্ষেপণ ও বিভিন্ন প্রকারের তাড়িত তরল সকল পরস্পরকে আকর্ষণ করে । এই দুই প্রকার তাড়িত তরলের সমান পরিমাণে সংলোগে এক প্রকার নিষ্টে । gif; wazi (Neutral fluid) \s. পন্ন হয়। পদার্থের সহজ অর্থ "তড়িদনা ক্রান্ত অবস্থায় এই নিচেই তড়িত তরল বহুল পরিমাণে থাকে। আর কোন পদার্থ তড়িদা ক্রান্ত হইলে উভয় তাড়ি ত-তরলের সময় নষ্ট হইয়া একের আধিক্য ও ঠিক, সেই পরিমাণে অপরের ক্লাস হয় । সুতরাং কোন বস্তুতে তাড়িত তরল সকল সময় এক পরিমাণে থাকে। আর এ দারা ইহাও প্রতিপন্ন হইতেছে যে যখন উভয়েব এক প্রকার তাড়ি ত তরলের স্রোত এক বস্তুর ভি চর দিয়া কোন দিকে প্রবাহিত । হয়, তখন অপর তাড়িত তরলের স্রোত সমবেগে প্রবাহিত হয়। অর্থাৎ এক স্রোত SAASAASAASAAAS