পাতা:আর্য্যাবর্ত্ত (চতুর্থ বর্ষ).pdf/১১৫

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


SV আৰ্য্যাবর্তী। - ৪ৰ্থ বর্ধ-২য় সংখ্যা । অদৃষ্ট-চক্ৰ। নবম পরিচ্ছেদ । সপত্নী-সন্তাষে।। জ্যৈষ্ঠের প্রথমে এক দিন ইচ্ছাপুরে সংবাদ আসিল, নীরজা অসুস্থা-তাহার বিসূচিকার মত হইয়াছিল, রোগ কিছু উপশমিত হইয়াছে-আরোগ্য হয় নাই। এই সংবাদে ভট্টাচাৰ্য্য-গৃহে আশঙ্কার নিবিড় ছায়াপাত হইল। রাধাচরণ পাৰ্ব্বতীচরণের সহিত পরামর্শ করিয়া দানাপুর-যাত্রার উদ্যোগ করিল। পিসী-মা বলিলেন, তিনি যাইবেন । বিরজার হৃদয় ভগিনীর জন্য ব্যাকুল হইয়া উঠিতেছিল। কিন্তু বিধবা হইয়া সে আর কোথাও যায় নাই ; সেই জন্য সে যাইবার কথা বলিল না। সরোজা বলিল, সে যাইবে । সরোজা যাইতে চাহিলে বিরজা বারণ করিল না। তাহার কারণ দ্বিবিধ-প্ৰথম, নীরজার শুশ্রুষার আবশ্যক হইতে পারে ; সে জন্য পিতৃগৃহ DDBDB SDBB DDDB DBDDB BBDSDBB DD DBBLBD KBDB BDSDBDS যতীশ দানাপুরে ; কে জানে, অদৃষ্ট কখন কোন পথে, কাহাকে কোথায় লইয়া যায় ? সেই দিনই সরোজাকে লইয়া রাধাচরণ দানাপুর যাত্ৰা করিল। বিরাজা গোপনে রাধাচরণকে যতীশের সহিত সাক্ষাৎ করিয়া আসিতে বলিয়া দিল । সমস্ত রাত্রি ট্ৰেণ চলিল ; প্ৰভাতে দানাপুরে পৌছিল। তাড়াতাড়ি নামিয়া রাধাচরণ ভগিনীকে নামাইল ; তাহার পর তাহাকে লইয়া বাহিরে আসিয়া গাড়ী ভাড়া করিল। তখন রাধাচরণ শুনিল, ষ্টেশনের নাম দানাপুর হইলেও খাস দানাপুর দুই মাইল পথের কম নহে! ་་ ་་་་་་་ গাড়ী চলিতে লাগিল। পথ কঙ্করান্তত-সুরক্ষিত। পথের পার্থে কণ্টকগুল্ম। বৃক্ষলতা নূতন-প্ৰান্তর ধূলিধূসর। সেই তৃণহীন প্ৰান্তরে মহিষাদল তৃণ সন্ধান করিতেছে - আর প্রান্তর মধ্যবৰ্ত্তী খালের জলে কয়টি মহিষ দেহ ডুবাইয়া আছে-তাহাদের মুখমাত্র জলের উপর রহিয়াছে। কোথাও বা রাখাল-বালক একটি মহিষের পৃষ্ঠে শয়ন করিয়া অন্যগুলিকে লক্ষ্য করিতেছে। প্রান্তরে এক প্রকার চিল ঘুরিতেছে ; তাহাদের দেহ পক্ষDDDYiDDDBB S BBDDDB DDD D BBDBDD BDBDSS DB DBB BDD