পাতা:আর্য্যাবর্ত্ত (চতুর্থ বর্ষ).pdf/১২৪

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


ceri, Yoo অদৃষ্ট-চক্ৰ । ܘܼܕ& আপনার হৃদয়ের শক্তিতে যে বিশ্বাস-বশে সে মনে করিয়াছিল, সে তা থাকিতে আইসে নাই-তবে স্বামীকে একবার দেখিবে না কেন ?-যতীশকে দেখিয়া-যতীশের কণ্ঠস্বর শুনিয়া তাহার সে বিশ্বাস চুৰ্ণ-বিচূর্ণ হইয়া গিয়াছিল। সে বুঝিয়াছিল, মানুষের হৃদয় দুৰ্ব্বল-রমণীর হৃদয়ের শক্তিতে বিশ্বাস করিতে নাই। সে সরলা কল্যাণীর কথা মনে করিল, তাহার প্ৰেমপ্রফুল্প সংসারের কথা স্মরণ করিল, আপনার হৃদয়ের দিকে চাহিল, ভাবিল५ कि ७2८व्वां ङञ ! তাই সে গৃহে আসিয়াই রাধাচরণকে বলিল, “চল, আমরা আজ ফিরিয়া शांछे ।” রাধাচরণ পূর্বদিন অপরাহুে যতীশচন্দ্রের নিকট শুনিয়াছিল, তাহার একজন সতীর্থ নিকটবৰ্ত্তী বাকি পুর সহরে আসিয়াছে। সে মনে করিয়াছিল, সেই দিন অপরাহে যাইয়া তাহার সহিত সাক্ষাৎ করিবে । বাকিপুর দেখাও হইবে, বন্ধুর সহিত সাক্ষাৎও হইবে । তাই সে বলিল, “আজই যাইবে ?” সরোজা বলিল, “হঁ।” “কল্য হইলে হয় না ?” “না। কুটুম্ববাড়ী অধিক দিন থাকা ভাল দেখায় না।”- রাধাচরণ আর কিছু বলিল না । DDB LB DD BDBDDB DLDLL DBBB KS BBBB DLDiBD S DDDBD কথা বলিলে তিনি বলিলেন, “পথ ত অল্প নহে-পরাশ্ব সারা রাত জাগিয়া আসিয়াছ, আবার আজই যাইবে না, সে হইবে না। অন্ততঃ আর এক D DDDYKDB BD DELDD SS DD DD DBDB DBBBDSSBDB BBBu যে অবস্থা, বলিতে সাহস হয় না। এই পোড়া রোগ আসিয়া দেশের সর্বনাশ করিল-নহিলে এ স্থানের এমন অবস্থা ছিল না । সে তোমরা শুনিয়াছ।” তিনি প্লেগের কথা বলিতেছিলেন। তখন বিহারে প্লেগের আবির্ভাব হইয়াছে ; প্রতি বৎসর বসন্তের আগমনের সঙ্গে সঙ্গে গ্রামে গ্রামে শোকাওঁ গৃহস্থের আর্তনাদে তাহার বিজয়-ডঙ্কা বাজিয়া উঠে, আর বর্ষার বারিপাত না হইলে তাহার তিরোভাব হয় না । অপরাহুে কল্যাণী আবার আসিল, জিদ করিয়া সরোজাকে বলিল, “দিদি, তুমি যাইতে পাইবে না। তুমি কোন যাইবে ?” সরোজার হৃদয়ে প্রবল সংগ্ৰাম চলিতেছিল। এক দিকে রমণীর প্ৰেম 8