পাতা:আর্য্যাবর্ত্ত (চতুর্থ বর্ষ).pdf/২৭৯

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


অধিকার কোম্পানীরই থাকিবে। বিশেষ ব্যবস্থা ব্যতীত ইজারাদার জাতির কলহের (ঘোট) বিচার করিতে পরিবেন না-বিবাহের অনুমতিও দিতে পরিবেন না। কোন মৃত ব্যক্তির উত্তরাধিকারী না থাকিলে ইজারাদার তাহার ত্যক্ত সম্পত্তির সম্পৰ্শ ফর্দ করিয়া তাহার দ্রব্যাদি কাছারীতে পাঠাইবেন, আদেশ ব্যতীত আর কাহাকেও দিবেন না। কোম্পানীর কারবারসম্বন্ধে যখন যে আদেশ হইবে ইজারাদারকে তখন তাহা তামিল করিতে হইবে। ইজারাদার নিদিষ্টসংখ্যক লোক রাখিয়া মহলে শান্তিরক্ষা করিবেন। ইজারাদার হুকুম ব্যতীত রাস্তা বা বঁধের জন্য জমী দিতে পরিবেন না । ইজারাদার পূৰ্বাধিকারীর মত প্রজার নিকট খাজনা আদায় করিবেন। ইজারাদার প্রচলিত প্রথানুসারে বঁাধ, নালা প্ৰভৃতির সংরক্ষণ করিবেন। জুন মাসে কয়েকজন ভারতবাসী গত বৎসরের বন্দোবস্তের উপর ১,১০,০০১ টাকা অধিক দিয়া ইজারা লইবার প্রস্তাব করিল। তাহারা স্বীকার করিল যে, রাইয়াতদিগের উপর তাহারা অসাধারণ করা বৃদ্ধি করিয়াছে প্রমাণিত হইলে, বদ্ধিত করের দিগুণ ক্ষতিপূরণস্বরূপ দিবে। এই সকল সৰ্ত্তে তাহারা তিন বৎসরের জন্য পরগণা ইজারা লইতে চাহিল। এই প্ৰস্তাবসম্বন্ধে হলওয়েলের মন্তব্য ১৭৫৯ খৃষ্টাব্দের ১১ই জুনের কাৰ্য-বিবরণে দেখা যায়। তিনি বলিয়াছিলেন, জমী খাসে রাখিলে কোম্পানী কখনই তাহার.প্রকৃত মূল্য বুঝিতে পারিদেন না। তৎপরে ফ্রাঙ্কল্যাণ্ডকে প্রশংসা করিয়া তিনি বলেন, কোম্পানীর ক্ষতি না হয়, এরূপ ভাবে রাজস্ব পরিদর্শন করা কোন প্রতিভাশালী ও বিশিষ্ট বুদ্ধিমান ব্যক্তির পক্ষেও অসম্ভব। কেহই এককালে সর্ববিষয়ে মন দিতে পারেন না। সুতরাং কতকগুলি লোককে বিশ্বাস করিতেই হইবে। দুর্ভাগ্যের বিষয়, যাহাদিগকে বিশ্বাস করিতে হইবে সাধুতাসম্বন্ধে তাহাদের কোন ধারণাই নাই। পূর্বোল্লিখিত প্ৰস্তাবসম্বন্ধে তিনি বলেন, ইহাতে বিশ্বাসের অযোগ্য লোকের হাতে সমগ্র জমীদারী পড়িবার সস্তাবনা । সেই ভয়ে তিনি স্বয়ং বাৎসরিক ১০,০০০ টাকা অধিক দিবার প্রস্তাব করেন। উপ? সংহারে তিনি বলেন,-পরগণা পরগণা বিলি না করিলে লাভ হইবে না। ইজারাদারগণ এই প্রস্তাবে আপত্তি করেন ও বলেন, তাহাদের অধিকাংশই পুরুষাঙ্গুক্ৰমে জমীদারীর ইজারাদার । তঁহারা বহুকষ্টে জঙ্গল সাফ করিয়া-হিংস্র জন্তুর বাসভূমিতে বসতি বসাইয়াছেন। প্রজার সুবিধার জন্য তঁহারা অনেকে জমীদারীতে। গৃহনিৰ্ম্মাণ করাইয়া তথায় আসিয়া সপরিবারে বাস করিতেছেন এবং বিশেষ যত্ন ও চেষ্টা করিয়া প্ৰজার সংখ্যা বন্ধিত করিয়াছেন। এই প্ৰজাদিগকে তঁাহারা সন্তানবৎ ব্যবহার করিয়াছেন। ও তাহদের সাহায্যে দেশে দসু্যতস্করের উপদ্রব নিবারিত করিয়াছেন। দুৰ্ভাগ্যবশতঃ ২ কিছুদিন হইতে নবাবদিগের করবৃদ্ধিহেতু তঁাহারা উদ্বাস্তু হওয়ায় অনেক জমী পতিত। ; রহিয়াছে। তাহাতে খাজনাও কমিয়া আসিতেছে। কোম্পানীর সম্পত্তি-প্ৰাপ্তির সংবাদে ? ঊাহারা আনন্দোৎফুল্ল হইয়াছেন। তঁহাদের আশা, কোম্পানীর অধীনে তঁাহারা জমীদারীর , অসাধারণ উন্নতি সাধন করিতে পারিবেন। সুতরাং ১৭৫৯ খৃষ্টাব্দে ইংরাজের রাজস্ব-বিষয়ে যে সমস্যা, উপস্থিত হয়-লর্ড কর্ণ