পাতা:আর্য্যাবর্ত্ত (চতুর্থ বর্ষ).pdf/৩৪

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


8भंॉथं,४७.६० । । U 章颁 DBDDBB BDD DBDDB DDBSiDBD DBBDBD DBLlzS একত্র বিমিশ্র বিভিন্নধাতব পদার্থের বিশ্লেষণ করিয়া প্রত্যেকটি ধাতু পৃথক । করিয়া লইবার প্রণালী অবগত ছিলেন। মোগলশাসনসময়ে এই শিল্প বিক্ৰমপুর হইতে ঢাকার অন্যান্য স্থানেও বিস্তৃতিলাভ করিয়াছিল।” । । ঢাকার সুবর্ণ ও রৌপ্যের বিচিত্র কারুকাৰ্য দেশবিদেশে খ্যাতিলাভ, করিয়াছে। ঢাকার বাদ্যযন্ত্রও বিশেষ বিখ্যাত। . ঢাকার বস্ত্রশিল্পের ইতিহাসের আলোচনা করিলে অশ্রুসম্বরণ করা: দুঃসাধ্য হইয়া উঠে; মনে হয়, হায় “কি ছিলে ? কি হ’লে ? কি হ’তে চলিলে ?” গ্রন্থকার ৫০ পৃষ্ঠায় এই দুৰ্দশার করুণ কাহিনী বর্ণনা করিয়াছেন। বাইবেলে ঢাকাই মসলিনের উল্লেখ আছে। প্লানিপ্রমুখ প্রাচীন লেখকগণের রচনায় বিদেশে এই মসলিনের আদরের কথা অবগত হওয়া যায়। টেভারনিয়ার লিখিয়াছিলেন, পারস্যের রাজদূত ভারত হইতে প্ৰত্যাগমনকালে পারস্তের সাহকে উপহার” দিবার জন্য ৬০ হাত দীর্ঘ একখানি মাসলিন অতি ক্ষুদ্র একটি নারিকেলের মালার মধ্যে পুরিয়া লইয়া গিয়াছিলেন। SDDDBS SBBDDDH SKBDB DBB LDDDD DDD DD BBDDB DBDD S ঢাকায় প্রস্তুত হইত। ১৭৫৩ খ্ৰীষ্টাব্দে ঢাকায় ২৮,৫০,০০০ টাকার বস্ত্ৰ বিক্ৰীত । হইয়াছিল। তখন টাকার ক্রয়কারী শক্তি যে অধিক ছিল, তাহা বলাই বাহুল্য। ১৮০০ খ্ৰীষ্টাব্দেও ঢাকার উৎকৃষ্ট মলমল প্ৰস্তুত হইত। তখনও ১৭৫ হাত লম্বা একখানি মলমলের ওজন ৪ তোলা হইত। ১৮৮৬ খৃষ্টাব্দে gDLL DDD DDD DBB DDD D tDL S iiBD DD BBBB লিখিয়াছিলেন, “দুই একটি পরিবারে এখনও ঢাকার ইতিহাস-প্রসিদ্ধ, মসলিন প্ৰস্তুত হইতে পারে।” এত দিনে বোধ হয়। ভারতের এই গৌরবের সামগ্ৰী উৎপাদনের শেষ সম্ভাবনাও তিরোহিত হইয়াছে। “ঢাকার ইতিহাস’ লিখিয়া যতীন্দ্রবাবু কেবল ঢাকার নহে, পরন্তু সমগ্ৰ; BDBBD Di DBDD DBBDDDBDS DBBDB BD DD DD DB DJS লেখকের আরব্ধ কাৰ্য্যের তুলনায় সে সকল নগণ্য। এই গ্ৰন্থ চার খণ্ডে সমাপ্ত হইবে। আলোচ্য খণ্ডে “কৃষি, শিল্প, বাণিজ্য ও বন্দর জমি | ७ जब, थांौन बौर्डेि, खैौर्थांन ७ *Jशंन, cवांगम्र ७ ঐতিহাসিক । স্থান", প্রভৃতির বিবরণ বিবৃত হইয়াছে। ইহা কতকটাGazetteer শ্ৰেণীয়: DgES S D LiLi BD SLuBDBD DD rrS BB BDDS