পাতা:আর্য্যাবর্ত্ত (চতুর্থ বর্ষ).pdf/৪০২

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


ভাদ্র, ১৩২০ ফরাসী বিপ্লবের ইতিহাস । ܕܘܼܟܘܢ ' ত্যাগ করিলে ফিউলাণ্ট সম্প্রদায়ভুক্ত কতিপয় মহাত্মা মন্ত্রিত্বে অধিষ্ঠিত হইয়াছেন। কিন্তু তাঁহাদের প্রতিভা, প্ৰতিপত্তি এবং কাৰ্য্যদক্ষতার সম্পূর্ণ DBBDDBD S SDDBDBDE DDBtB BBBDB BD DBuDuD DBBDBDB BKE DBLYD করিবে ? আবার এদিকে বিশ্বস্ত, রাজভক্ত শরীর রক্ষকগণ কৰ্ম্ম হইতে অবসর প্ৰাপ্ত হইয়াছে। রাজপরিবারবর্গের আত্মরক্ষারই বা উপায় কি ? রাজা ও রাজী আহোৱহ দুশ্চিন্তানলে দগ্ধ হইতেছেন। রাজা একদা জনৈক বন্ধুকে বলিলেন “মিত্রবর, মৃত্যুকে ভয় করা দূরে থাকুক, আমি মৃত্যু কামনা করি। আমার মৃত্যু হইলে পরিবারবর্গের পরিত্ৰাণ-পথ কণ্টকবিমুক্ত হইবে। পক্ষান্তরে, আমি যদি পলায়নের অথবা বলপ্রয়োগের চেষ্টা করি, তাহা হইলে পরিবারবর্গের বিপদের পরিসীমা থাকিবে না ।” রাণী বলিলেন, “আমি । বিদেশীয় লোক, বিপ্লবকারিগণ নিশ্চয়ই আমাকে হত্যা করিবে। মৃত্যু আমার পক্ষে শ্ৰেয়ঃ ; দারুণ যন্ত্রণাময় জীবন ধারণ অপেক্ষা মানবের মৃত্যুই মঙ্গল। কিন্তু নিঃসহায় পুত্ৰকন্যার কি উপায় হইবে ?” এই বলিয়া তিনি অজস্র অশ্রু বিসর্জন করিতে লাগিলেন। অজ্ঞাত শক্রির অস্ত্রাঘাতে হইতে রাজাকে রক্ষা করিবার নিমিত্ত রাজ্ঞী স্বহস্তে একটি পরিচ্ছদ প্ৰস্তুত করিয়া র্তাহাকে পরিধান করিতে অনুরোধ করিয়াছিলেন । রাজা সেই পরিচ্ছদে দেহ আবৃত করিয়া ঈষৎ হাস্য করিয়া বলিলেন, “আমার গুপ্ত শক্রির অস্ত্ৰাঘাতের আশঙ্কা নাই-আমার মৃত্যু অন্য প্রকারে ঘটিবে।” খাদ্যসামগ্রীর সহিত হবাহল মিশ্রিত করিয়া শক্ৰগণ তাহাদের দুরভিসন্ধি পূর্ণ করিতে না পারে এই নিমিত্ত রাজপরিবারবর্গ পাচকগণকৃত খাদ্য উদারস্থ করেন না । পাচকগণ আহারীয় সামগ্ৰী যথাস্থানে রাখিয়া চলিয়া গেলে ম্যাডাম ক্যাম্পেন নারী রাজকীর সহচরী পুনর্বার তঁহাদের নিমিত্ত রন্ধন করেন। সুতরাং বৰ্ত্তমান অবস্থায় তাহারা কি প্রকারে নিরুদ্বেগ হইবেন ? রাজ-পরিবারবর্গের তাদৃশ শোচনীর অবস্থাদৃষ্টে রাজভক্তব্যক্তিগণ প্রাসাদে সমাগত হইয়া উপস্থিত শঙ্কট হইতে পরিত্রাণের উপায় উদ্ভাবনে প্ৰবৃত্ত হইলেন। কিন্তু দুৰ্ভাগ্যক্রমে ভঁাহারা প্রত্যেকেই এক একটি স্বতন্ত্র যুক্তি প্ৰদান পূর্বক বিভ্ৰাট উৎপাদনা করিলেন। কেহ কেহ রাজাকে রাইন নদীর তীরবর্তী স্থানে গমন করিতে পরামর্শ দিলেন। ল্যাফাইট প্রভৃতি কতিপয় ব্যক্তি বলিলেন, বৰ্ত্তমান অবস্থায় সৈন্যগণের আশ্রয় গ্রহণই রাজার একমাত্ৰ কৰ্ত্তব্য। বাটাও স্বীয় অভিপ্ৰায় ব্যক্ত করিয়া কহিলেন , নরম্যাক্তি দেশে পলায়নই