পাতা:আর্য্যাবর্ত্ত (প্রথম বর্ষ).pdf/৩২

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


Crite, Sere 4, f། | Gł প্রতিফলিত হইয়াছিল। কিন্তু তাহার আবির্ভাবের পূর্বে পঞ্চনদ প্রদেশের জনসমাজের মধ্যে এই মত বিক্ষিপ্ত ও খণ্ডিত ভাবে ক্রমশঃ প্ৰকাশ পাইতেছিল। তিনি সেই বিক্ষিপ্ত, খণ্ডিত মতকে সংগৃহীত, পূর্ণ, ও পদ্ধতিবদ্ধ করিয়া তাহাকে একটি অখণ্ড, পূর্ণ ও শৃঙ্খলাযুক্ত ধৰ্ম্মমতে পরিণত করিয়া জনসমাজে ; প্রচারিত করিয়াছিলেন। . তাহার আবির্ভাবের পূর্বে এই ধৰ্ম্মমত অসম্পূর্ণ ও ছিন্ন ভিন্ন ভাবে পঞ্চনদের জনসমাজে কিরূপে প্ৰকাশ পাইয়াছিল, তাহাই আমাদের আলোচ্য বিষয়। পঞ্চনদ প্ৰদেশই ভারতীয় ধৰ্ম্মমতের আদি স্থান। এই স্থানই অতি প্ৰাচীন কালে ব্ৰহ্মাবৰ্ত্ত ও কুরুবর্ষ নামে অভিহিত ছিল। এই স্থানেই প্ৰথমে আৰ্য্যগণের বেদগানে ও যজ্ঞধুমে আকাশমণ্ডল প্ৰতিধ্বনিত ও পূত হইয়াছিল। বৈদান্তিক ধৰ্ম্ম ও বৌদ্ধ ধৰ্ম্ম এই স্থানে আবিভূত না হইলেও এই স্থানে অনেক দিন স্থায়িত্ব লাভ করিয়াছিল। বৈদান্তিক ধৰ্ম্ম বৈদিক ধৰ্ম্মেরই অংশীভুত। বেদান্ত বেদের উপনিষদ ভাগের দার্শনিক বিচারমাত্র। সুতরাং পঞ্চনদ প্রদেশ বৈদাস্তিক ধৰ্ম্মের ক্ষেত্র ইহা অকুণ্ঠ কণ্ঠে বলা যাইতে পারে। বৌদ্ধ ধৰ্ম্ম কীটকদেশে প্ৰথমে আবিভূতি হইলেও ভারতের অন্যান্য স্থান অপেক্ষা পঞ্চনদ প্রদেশেই বহুদিন স্থায়ী হইয়াছিল। বৰ্ত্তমান সময় পৰ্য্যন্ত পঞ্চনদ প্রদেশে বহুসংখ্যক বৌদ্ধস্তােপ বিদ্যমান রহিয়াছে। ইহাতেই বুঝা যায় যে, এক সময় তথায় বৌদ্ধধৰ্ম্ম বিশেষরূপ প্ৰবল হইয়া উঠিয়াছিল। তাহার পর খৃষ্টীয় নবম শতাব্দীতে যখন শ্ৰীমৎ শঙ্করাচাৰ্য্য ভারতে বৰ্ণাশ্রম ধৰ্ম্মের বিজয়পতাকা উডীন করেন, তখন তাহার তরঙ্গের কল্লোল ও জয়নিনাদকোলাহল সুদুর পঞ্চনদ প্ৰদেশ পৰ্য্যন্ত শ্রুত হইয়াছিল। তাহার কিছুদিন পরেই সেই বেগবান তরঙ্গ পঞ্চনদতটো প্ৰবল বেগে অভিঘাত করিতে থাকে । সেই তরঙ্গাভিঘাতে পঞ্চনদের বৌদ্ধধৰ্ম্ম শিথিলমূল হইয়া পরে প্রায় বিলুপ্ত হইয়া যায়। এই সময় ১০০, ১ অব্দে গজনীর মামুদ, আফগান রাজ্যের মধ্য দিয়া পঞ্চনদ প্রদেশে উপনীত হইয়াছিলেন। তিনি কিঞ্চিন্নান ত্রিংপবৰ্যকাল পঞ্চনদ প্ৰদেশকে উৎপীড়িত ও পযুদস্ত করিয়া পরিশেষে লাহােরে একজন শাসনকৰ্ত্তা প্ৰতিষ্ঠিত করিয়াছিলেন। সেই সময় হইতে পঞ্চনদভূমি মুসলমান রাজ্যে DD LDDSSS DD BBD gL S BDBBS BDDB KL S KYz DBBDD পঞ্চনদ প্রদেশে আসিয়া বাস করেন তাঁহাদের মধ্যে অধিকাংশই পারসিক