পাতা:আর্য্যাবর্ত্ত (প্রথম বর্ষ).pdf/৬৭১

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


৬৪৬ - আৰ্যাবর্তী। - ১ম বর্ধ-৯ম সংখ্যা 1, . রাজা ছেলে হাড়িতে পুরিয়া কোদাল কঁাধে করিয়া ছেলেটিকে পুতিবার । জন্য বাহির হইলেন। রাণীও কঁাদিতে কঁাদিতে পিছু পিছু ছুটলেন। রাজা শ্মশানে আসিয়া গৰ্ত্ত করিতে লাগিলেন। এমন সময় রাণী দেখেন, সেই সুন্দর . যুবক আবার তাহার নিকট দাড়াইয়াছে। কোনও কথা কহিতেছে না। রাণী সাহসে ভরা করিয়া ঐ যুবার পায় পড়িলেন। তখন সকলে অবাক । একি, এই সুন্দর যুবক কে ? রাজা আনুপূর্বিক যুবককে সমস্ত কথা বলিলে তখন যুবক বলিল“তোমরা ছেলে পেয়ে আহিলাদে বিভোর ছিলে এবং তোমার স্ত্রী বরকুমার ব্ৰত ছেড়ে দিয়েছেন। তিন মাস ব্রতের ধান ভিজাইয়া রাখিয়াছেন, তাহাতে বিড়ালে মাছের কঁাটা ফেলিয়া রাখিয়াছে। সেই পাপে ছেলে মারা গিয়াছে। যদি ছেলে বঁাচাইতে ইচ্ছা থাকে। তবে ঘাড়ী গিয়া সত্বর ধানগুলি গঙ্গাজলে ধুইয়া চিড়া তৈয়ার করিয়া বরকুমার ব্ৰত করিতে আপনার স্ত্রীকে বলুন।” এই বলিয়া যুবক অদৃশ্য হইল। রাজা শিহরিয়া উঠিলেন। তখন রাণীর চৈতন্য হইল। তিনি যে ধান ভিজাইয়াছেন তাহাও স্মরণ হইল। তখন উৰ্দ্ধশ্বাসে বাড়ী গিয়া তিনি ষোড়শ উপচারে ব্রতের অনুষ্ঠান করিলেন এবং ব্ৰতের তুলসী দুৰ্ব্বা লইয়া সেই মৃত ছেলের গায়ে দিয়া সাতবার “জীয়ঃ, জীয়াঃ” বলিয়া ডাক দিলেন। অমনই ছেলে কঁাদিয়া উঠিল । রাণী জীবনে আর ব্ৰত ভুলিলেন না। এই ব্ৰত করিলে অপুত্রের পুত্র হয় ; ছেলে মেয়ে সুস্থ হয়। ইহাই পুরনারীগণের ধারণা। ময়মনসিংহ জিলায় এই ব্ৰত প্রচলিত আছে। शैनहद्रव्यनाथ अकूमलांघ्र । VITEP ap. कदश्व्व् । সাগর বলিছে,-“ওরে ক্ষুদ্র জলকণা, তোর চেয়ে বড় মোর ছোট ছোট ফেনা।” জলবিন্দু বলে,-“শুন যা’ বলিছ তাই, আমারি সমষ্টি কিন্তু জেনো তুমি, ভাই।” । वैशब्रiप वक्षगांत्र।