পাতা:আশুতোষ স্মৃতিকথা -দীনেশচন্দ্র সেন.pdf/১৪০

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


R 28 আশুতোষ-স্মৃতিকথা বাঙ্গলা লেখায় একটা যুগান্তর উপস্থিত হইয়াছে। প্ৰাকৃত-রীতির স্থলে ধীরে ধীরে বাঙ্গার্ল লেখকেরা উচ্চারণ ও বর্ণ-বিন্যাসে সংস্কৃত-রীতি অবলম্বন করিয়াছেন। এই মান পরিবর্জনের যুগে এক দিনেই লিপির প্রাচীন পদ্ধতি উন্টিয়া যায় নাই। এজন্য আসি সংস্কৃত-রীতি ও গমনােন্মুখ প্রাকৃত-রীতি উভয়েরই প্রভাব এই যুগের বাঙ্গলা-সাহিত্য বঃ করে। ষোড়শ শতাব্দীতে ইংরেজের ‘girl'এর স্থলে “guerle”, “vote'q3 : “woat 'politics'as Er "politiks' fat a খুব প্ৰাচীন পুথির সঙ্গে পরবত্তী একটি একটি করিয়া কয়েক যুগের বাঙ্গলা লেখা তুলনা-মুলক একখানি ‘লিপি-পরিচয়” প্ৰস্তুত করিলে হয়ত দেখা যাইবে, কি ভাবে উদয়ালু। ংস্কৃত-প্ৰভাবের পার্থে বিলয়োমুখ প্ৰাকৃত-রীতি ধীরে ধীরে অন্তহিত হইয়াছে। এই গুরুত্ৰ সমস্যা-সমাধানের পক্ষে প্ৰাচীন বাঙ্গলা গদ্যের নমুনা-স্বরূপ আমরা বিশ্বনাথের স্বহস্ত্ৰে লিখিত প্ৰাচীন পুথিখানি “যথা দৃষ্টং” সেই ভাবে নকল করিয়া প্ৰকাশিত করিলাম একটা দেশ-ব্যাপক পদ্ধতি, যাহা বিশিষ্ট একটি ভাষার রীতি-নির্দেশক, তাহা সংস্ক নিয়মাধীন নাই বা হইল, সেই পরিচয়-প্ৰদায়ী এই পুথিখানি যেন তথা-কথিত বিজ্ঞ ব্যক্তিত্ব বৰ্ণাশুদ্ধির উদাহরণ। বলিয়া মনে না করেন ; সেরূপ করিলে তঁহাদের বিজ্ঞতা হহঁতে অজ্ঞতা বেশী প্ৰদশিত হইবে । অবশ্য এখন বাঙ্গলার লিখন-পঠনের রীতি একটা নিদিষ্টরূপ গ্ৰষ্ঠ করিয়াছে। কিন্তু সন্ধি-যুগের লেখাগুলি আধুনিক শুদ্ধাশুদ্ধির নিয়ম দ্বারা বিচার বর্গ একেবারেই অসঙ্গত হইবে । আর কয়েক বৎসর পরে বাঙ্গলার লিপি যে নানা ভff" পরিবর্তিত হইবে, তাহার সূচনা এখন হইতেই পাওয়া। যাইতেছে । শ্ৰীশ্ৰীহরিঃ - Jiኛ°iኗ !-- মোং কালনারগঞ্জ হইতে জল। রংপুর পয্যন্ত নৌকাপথে জাইবার পথের १ि१ॐ नन & २8१ जाल उा ६ &८ कालैिक । শ্ৰীশ্ৰীহরি - সহায় - সন ১২৪৭ সােল তারিখ ২৭ আস্বীন রবিবার মোং জিরাটের বাটী হইতে জর্জি। করিয়া ২৭৷২৮ তারিখ বাহির বাটীতে থাকীয়া ২৯ রোজ প্ৰাতে অস্বীকার at演で রাহি হইলাম ঐদিবষ দিব আন্দাজ দুই প্ৰহরের সময় অস্বীকায় পৌঁছিয়া রংপুর জাওনের নৌকার অসঙ্গতি প্রজুক্ত ইং ২৯ আস্বীন লাং ১৪ কাৰ্ত্তিক অস্বীকার বাটীতে থাকীয়| ১৫