পাতা:করিম সেখ - জলধর সেন.pdf/৪৮

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


"8. করিম সেখ, | S S | বসিরের মা আশঙ্কা করিতেছিল যে, করিম হয় তা তাহদের সৰ্ব্বনাশের জন্য নানাপ্রকার চেষ্টা করিবে ; হয় ত সে আর একদিন বৌয়ের উপর অত্যাচার করিবে ; তাহাও যদি না হয়, তবে হয় ত সে ঘরে আগুন দিয়া তাহাদিগকে পোড়াইয়া মারিবে । কিন্তু তাহার কিছুই হইল না। সেই রাত্রির ঘটনার পর হইতে করিম আর সে করিম রহিল না । পূর্বোক্ত ঘটনার রাত্ৰিতে উদ্ভান্ত করিম যখন বসিরের বাড়ী হইতে পলায়ন করিল, তখন তাহার বুদ্ধির স্থিরতা ছিল না । অনুস্হত পলায়নপর জীবের ন্যায় সে সমস্ত রাত্রি কেবল মাঠে ঘাটে দৌড়িয়া বেড়াইয়াছিল। তাহার অনুক্ষণ মনে হইতেছিল কে যেন তাহার পশ্চাতে ছটিয়া আসিতেছে, এখনই তাহার অশরীরী বাহু যেন তাহার কণ্ঠরোধ করিয়া ধরিবে। করিম মুহুৰ্ত্ত কোথাও স্থিরভাবে দাড়াইতে পারিল না । পলাও পলাও করিম ! পৃথিবীর শেষ প্ৰান্তে পলায়ন কর । সমস্ত গাছের তলায় অন্ধকার জমাট বাধিয়া রহিয়াছে ! করিম সে দিকে চাহিয়া আর অগ্রসর হইতে পারিল না, কে যেন সেই সুচিভেদ্য অন্ধকারের অন্তরালে লুকাইয়া আছে, এখনই তাহার মধ্যে ছটিয়া চলিল। সম্মুখে ও কি ? বনের রেখা দেখা যাইতেছে! সহসা বায়ুহিল্লোলে গাছপালা সরু সরু করিয়া উঠিল, করিম চমকিয়া উঠিল! কে যেন কথা কহিতেছে ! ও ! কি ভীষণ শব্দ ! করিম দ্রুতবেগে বিপরীত দিকে ছুটিয়া চলিল।