পাতা:কাব্যগ্রন্থ (নবম খণ্ড).pdf/৩২

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


রাজা সুরঙ্গম । কি জানি কখন হ’য়ে গেল ! সমস্ত দুরন্তপন। হার মেনে একদিন মাটিতে লুটিয়ে পড়ল। তখন দেখি যত ভয়ানক ততই সুন্দর । বেঁচে গেলুম, বেঁচে গেলুম, জন্মের মত বেঁচে গেলুম। সুদৰ্শন । আচ্ছা স্তুরঙ্গমা, মাথা খা, সত্যি করে’ বল আমার রাজাকে দেখতে কেমন ? আমি একদিনও তাকে চোখে দেখলুম না ! অন্ধকারেই আমার কাছে আসেন, অন্ধকারেই যান । কতলোককে জিজ্ঞাসা করি কেউ স্পষ্ট করে জবাব দেয় না—সবাই যেন কি একটা লুকিয়ে রাখে । স্বরঙ্গম । আমি সত্যি বলচি রাণী, ভালো করে’ বলতে পারব না । তিনি কি সুন্দর ? না, লোকে যাকে সুন্দর বলে তিনি তা নন । স্বদর্শন । বলিস কি ? হুন্দর নন । সুরঙ্গমা । না রাণীমা । সুন্দর বল্লে তাকে ছোট করে’ বলা হবে । সুদৰ্শন । তোর সব কথা ঐ এক রকম । কিছু বোঝা যায় না । স্তরঙ্গম । কি করব মা, সব কথা ত বোঝানো যায় না । বাপের বাড়িতে অল্পবয়সে অনেক পুরুষ দেখেছি, তাদের স্বন্দর বলতুম । তা’র আমার দিনরাত্রিকে আমার সুখদুঃখকে কি নাচন নাচিয়ে বেড়িয়েছিল সে bア