পাতা:কাব্যগ্রন্থ (নবম খণ্ড).pdf/৬৮৫

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


মোর চক্ষে এ নিখিলে দিকে দিকে তুমিই লিখিলে রূপের তুলিকা ধরি’ রসের মূরতি সে প্রভাতে তুমিই ত ছিলে এ বিশ্বের বাণী মূৰ্ত্তিমতী । একসাথে পথে যেতে যেতে রজনীর আড়ালেতে তুমি গেলে থামি’। তা’র পরে আমি কত দুঃখে সুখে রাত্রিদিন চলেচি সম্মুখে । চলেচে জোয়ার ভাটা আলোকে আঁধারে আকাশ-পাথরে ; পথের দু’ধারে চলেচে ফুলের দল নীরব চরণে বরণে বরণে ; সহস্রধারায় ছোটে দুরন্ত জীবন-নিঝরিণী মরণের বাজায়ে কিঙ্কিণী । অজানার স্বরে চলিয়াছি দূর হতে দূরে, মেতেচি পথের প্রেমে। , لا من المن\