পাতা:কাব্যগ্রন্থ (পঞ্চম খণ্ড).pdf/১৯৫

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


গান্ধারীর আবেদন অকাতরে,—অংশ লই তা’র দুৰ্গতির,— অৰ্দ্ধ ফল ভোগ করি তা’র দুৰ্ম্মতির,— সেই ত সাস্তুনা মোর,—এখন ত আর বিচারের কাল নাই—-নাই প্রতিকার, নাই পথ,—ঘটেছে যা ছিল ঘটিবার, ফলিবে যা ফলিবার আছে । ( প্রস্থান ) গান্ধারী হে আমার অশান্ত হৃদয়, স্থির হও । নতশিরে প্রতীক্ষা করিয়া থাক বিধির বিধিরে ধৈর্য্য ধরি। যে দিন সুদীর্ঘ রাত্রি পরে সদ্য জেগে উঠে কাল, সংশোধন করে আপনারে, সেদিন দারুণ দুঃখদিন । দুঃসহ উত্তাপে যথা স্থির গতিহীন ঘুমাইয়া পড়ে বায়ু—জাগে ঝঞ্চাঝড়ে অকস্মাৎ, আপনার জড়ত্বের পরে করে আক্রমণ, অন্ধ বৃশ্চিকের মত ভীমপুচ্ছে আত্মশিরে হানে অবিরত >b">