পাতা:কাব্যগ্রন্থ (পঞ্চম খণ্ড).pdf/২০১

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


গান্ধারীর আবেদন সূৰ্য্য হ’তে তেজ, পৃথ্বী হ’তে ধৈৰ্য্যক্ষমা কর লাভ, দুঃখত্রত পুত্র মোর ! রম দৈন্ত্যমাঝে গুপ্ত থাকি দীন ছদ্মরূপে ফিরুন পশ্চাতে তব, সদা চুপে চুপে । দুঃখ হ’তে তোমা তরে করুন সঞ্চয় অক্ষয় সম্পদ । নিত্য হউক নির্ভয় নির্ববাসনবাস ।—বিনা পাপে দুঃখভোগ অন্তরে জ্বলন্ত তেজ করুক সংযোগ— বহ্নিশিখাদগ্ধ দীপ্ত সুবর্ণের প্রায় । সেই মহাদুঃখ হবে মহৎ সহায় তোমাদের —সেই দুঃখে রহিবেন ঋণী ধৰ্ম্মরাজ বিধি,—যবে শুধিবেন তিনি নিজহস্তে আত্মঋণ, তখন জগতে দেবনর কে দাড়াবে তোমাদের পথে । মোর পুত্র করিয়াছে যত অপরাধ খণ্ডন করুক সব মোর আশীর্ববাদ পুত্রাধিক পুত্ৰগণ । অন্যায় পীড়ন গভীর কল্যাণসিন্ধু করুক মন্থন । ( দ্রৌপদীকে আলিঙ্গন পূর্বক ) ভূলুষ্ঠিত স্বর্ণলতা, হে বৎসে আমার, হে আমার রাহুগ্রস্ত শশী । একবার >b"