পাতা:কাব্যগ্রন্থ (পঞ্চম খণ্ড).pdf/৯১

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


মালিনী ওরে বাছা, আমি লব নবমন্ত্র তোর, অামি ছিন্ন করে” দেব’ জীণ শাস্ত্রডোর ব্রাহ্মণের । তোমারে পাঠাবে নির্ববাসনে ? নিশ্চিন্ত রয়েছ মহারাজ ? ভাব মনে এ কন্যা তোমার কস্যা, সামাদ্য বালিকা, ওগো তাহা নহে । এ যে দীপ্ত অগ্নিশিখা ৷ আমি কহিলাম আজি শুনি লহ কথা— এ কন্যা মানবী নহে, এ কোন দেবতা, এসেছে তোমার ঘরে । করিয়ো না হেলা, কোন দিন অকস্মাৎ ভেঙে দিয়ে খেলা চলে’ যাবে—তখন করিবে হাহাকার— রাজ্যধন সব দিয়ে পাইবে না আর । سعيد মালিনী প্রজাদের পূরাও প্রার্থনা । মহাক্ষণ এসেছে নিকটে । দাও মোরে নির্ববাসন পিতা । রাজা কেন বৎসে, পিতার ভবনে তোর কি অভাব ? বাহিরের সংসার কঠোর দয়াহীন, সে কি বাছা পিতৃমাতৃক্রোড় ? 이어