পাতা:কাব্যগ্রন্থ (সপ্তম খণ্ড).pdf/১৪৪

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


নৈবেদ্য যত বিশ্বাস ভেঙে ভেঙে যায়, স্বামী, এক বিশ্বাস রহে যেন চিতে লাগিয়া । যে অনল তাপ যখনি সহিব আমি দেয় যেন তাহে তব নাম বুকে দাগিয়া । দুখ পশে যবে মৰ্ম্মের মাঝখানে তোমার লিখন-স্বাক্ষর যেন আনে, রুক্ষ বচন যতই আঘাত হানে সকল আঘাতে তব স্থর উঠে জাগিয়া । শত বিশ্বাস ভেঙে যদি যায় প্রাণে এক বিশ্বাসে রহে যেন মন লাগিয়া ।