পাতা:কাব্যগ্রন্থ (সপ্তম খণ্ড).pdf/১৫২

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


খেয়া সাজের বেল ভাটার স্রোতে ও পার হ’তে এক-টানা একটি দুটি যায় যে তরী ভেসে । কেমন করে চিনব ওরে ওদের মাঝে কোনখানা আমার ঘাটে ছিল আমার দেশে । অস্তাচলে তীরের তলে ঘন গাছের কোল ঘেষে ছায়ায় যেন ছায়ার মত যায়, ডাকলে আমি ক্ষণেক থামি হেথায় পাড়ি ধরবে সে এমন নেয়ে আছে রে কোন নায় ? ওরে আয় ! অামায় নিয়ে যাবি কেরে দিন-শেষের শেষ খেয়ায় ? ঘরেই যারা যাবার তা’রা কখন গেছে ঘরপানে পারে যারা যাবার গেছে পারে ; ঘরেও নহে পারেও নহে যে জন আছে মাঝখানে সন্ধ্যাবেলা কে ডেকে নেয় তা’রে ? ফুলের বাহার নাইক যাহার ফসল যাহার ফলল না, অশ্রু যাহার ফেলতে হাসি পায়, দিনের আলো যার ফুরালো সাজের আলো জ্বলল না >ミb"