পাতা:চিঠিপত্র (দ্বাদশ খণ্ড)-রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর.pdf/১৬৩

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


তরুণ রথের সে ধ্বনি, পথের মন্ত্র শুনায়ে দিলে তাই পায়ে পায় দোহার চলায় ছন্দ গিয়েছে মিলে ॥ তিমির-ভেদন আলোর বেদন লাগিল বনের বক্ষে নব-জাগরণ পরশরতন আকাশে এলো অলক্ষ্যে কিশলয়দল হোলো চঞ্চল, শিশিরে শিহরি করে ঝলমল, সুরলক্ষ্মীর স্বর্ণকমল তুলে বিশ্বের চক্ষে । রক্ত রঙের উঠে কোলাহল পলাশকুঞ্জময় তুমি আমি দোহে কণ্ঠ মিলায়ে গাহিনু আলোর জয় ॥ সঙ্গীতে ভরি এ প্রাণের তরী অসীমে ভাসিল রঙ্গে । চিনি নাহি চিনি চিরসঙ্গিনী চলিলে আমার সঙ্গে । X 88