পাতা:চিঠিপত্র (সপ্তম খণ্ড)-রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর.pdf/২০১

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


পত্র ৭৭, ৭৯ ৷ ১৯২১ জুলাইতে রবীন্দ্রনাথ বিদেশ-ভ্রমণাস্তে দেশে প্রত্যাবর্তন করেন । এই সময় মহাত্মা গান্ধী -প্রবর্তিত অসহযোগ আন্দোলন দেশের চিত্তকে অধিকার করিয়াছে; রবীন্দ্রনাথ এই আন্দোলনকে সম্পূর্ণ সমর্থন করিতে পারেন নাই, ফলে তাহার অনেক অনুরাগীর মনও বিচলিত হয়। এই কালে কবি দেশচর্যা সম্বন্ধে যে-সকল মতামত প্রকাশ করেন, কাদম্বিনী দেবী সেই প্রসঙ্গে কবির সহিত পত্রব্যবহার করিয়া থাকিবেন । ভারতীয় জাতীয় মহাসভা বা ইণ্ডিয়ান ন্যাশনাল কংগ্রেসের আমেদাবাদ অধিবেশনে মৌলানা হজরত মোহানী, স্বরাজের অর্থ বিদেশীর নিয়ন্ত্রণ হইতে সর্বপ্রকারে মুক্ত পূর্ণ স্বাধীনতা' ( "complete independence free from all foreign control”) of ব্যাখ্যাত হউক, এই প্রস্তাব করেন। ইহা গৃহীত হয় নাই, মহাত্মা গান্ধী এই প্রস্তাবের বিরোধিতা করেন । পরে Young India পত্রে তিনি লেখেন— Maulana Hasrat Mohani put up a plucky fight for independence on the Congress platform and then as President of the Muslim League and was happily each time defeated. There is no mistake about the meaning of the Maulana. He wants to sever all connection with ১ দ্রষ্টব্য, কালান্তর, “সত্যের আহ্বান’ ও ‘শিক্ষার মিলন’ । ২ অবশেষে কংগ্রেসের মাদ্রাজ অধিবেশনে ( ১৯২৭ ) অনুরূপ প্রস্তাব গৃহীত হয়, এবং লাহোর অধিবেশনে ( ১৯২৯ ) কংগ্রেসের ক্রীড' পরিবর্তিত হইয়া ‘পূর্ণ স্বাধীনতা' কংগ্রেসের লক্ষ্য বলিয়া ঘোষিত হয় । এখানে তাহার বিস্তারিত আলোচনা অনাবগুক । >b->