পাতা:জ্ঞাতি শত্রু - প্রিয়নাথ মুখোপাধ্যায়.pdf/৪২

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা হয়েছে, কিন্তু বৈধকরণ করা হয়নি।

৪২

দারোগার দপ্তর, ২০২ সংখ্যা।


 আমি আরও বিনীতভাবে বলিলাম, “সামান্য দয়া করিলেই আমি উপকৃত হই। আমি বড় গরীব।”

 শ। কি করিতে হইবে বল?

 আ। আপনার সহিত ডাক্তার বাবুর বেশ আলাপ আছে জানি। আপনি যদি তাঁহাকে একবার আমাদের বাড়ীতে বিনা ভিজেটে যাইতে বলেন, তাহা হইলে একটী রমণী রক্ষা পায়।

 শক্তিসাধন আত্ম প্রশংসায় আন্তরিক আনন্দিত হইলেন। তিনি জিজ্ঞাসা করিলেন, “ডাক্তার বাবু কে? কেদার বাবু?”

 আ। আজ্ঞে হাঁ।

 শ। তোমার বাড়ী কোথায়?

 আ। আমাদের বাড়ী বর্দ্ধমান জেলায়। এখানে জোড়াবাগানে বাসা।

 শ। ডাক্তার বাবু ত অনেক স্থানেই কিনা ভিজিটে গিয়া থাকেন। অক্ষম দেখিলেই তিনি ভিজিট ছাড়িয়া দেন।

 আ। আমি ত তাহা জানিতাম না। আর তাহা হইলেও আমি যখন তাঁহার পরিচিত নহি, তখন কেমন করিয়া তাঁহাকে এ প্রকার অনুরোধ করিব।

 শক্তিসাধন তখনই গাত্রোখান করিলেন এবং আমাকে সঙ্গে লইয়া একখানি দ্বিতল অট্টালিকার দ্বারদেশে উপস্থিত হইলেন। দেখিলাম, সেই-ই ডাক্তারখানা।

 শক্তিসাধন আমাকে লইয়া বাটীর মধ্যে প্রবেশ করিতে না করিতে একজন যুবক বলিয়া উঠিলেন, “কেও, শক্তি বাবু! এমন অসময়ে কেন?”