পাতা:ধর্ম্মানুষ্ঠান (প্রথম খন্ড).pdf/২৩

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


Vo ] ব্যয় রামশঙ্কর বহন করিয়াছিলেন। তর্কসিদ্ধান্ত মহাশয়ের মৃত্যুকালে তাহার পুত্ৰ শ্ৰীনাথ বিদ্যাভূষণ ব্যতীত পৌত্ৰ কালীব্ৰহ্ম ভট্টাচাৰ্য্য ও দৌহিত্র দুর্গাগতি ভট্টাচাৰ্য্য, বিশ্বেশ্বর ভট্টাচাৰ্য্য ও কৃষ্ণধন সান্যাল ও জামাতা নবকুমার সান্যাল ও ব্ৰজমোহন সাঙ্গাল জীবিত ছিলেন। পিতৃবিয়োগ কালে শ্ৰীনাথ বিদ্যাভূষণের বয়ঃক্রম ২৪ বৎসর । এই বয়সেই তিনি অনেক গুণে গুণবান। ছিলেন । পিতার নিকট ব্যাকরণ ও স্মৃতি পাঠ সমাপন করিয়াছিলেন। তঁহার জীবনীর অধিকাংশ তাহার পিতামহের ন্যায় । কৃচ্ছসাধ্য তাপ ভিন্ন তাহার অন্য কোন কাৰ্য্য ছিল না। তাহার কঠোর তপস্যা ও তাহার ফলাফল র্যাহারা দেখিয়াছেন তাহারা ভিন্ন অপারে বুঝিতে অপারগ। র্তাহার আলোকসামান্য রূপ দেখিয়া ও কাৰ্য্যাদি দৃষ্ট বোধ হয় যেন কোন শাপত্ৰষ্ট দেবতা পৃথিবীতে বিচরণ করিতে আসিয়াছিলেন। যদিও কয়েকট ছাত্র ছিল তথাপি ইহার সময় প্ৰায় সর্বদা পূজা জাপাদিতে ব্যয় হইত। রাও রামশঙ্করের পুত্ৰ মহেশ নারায়ণ ও বৈকুণ্ঠ বাৰু ও তঁাহার ভ্ৰাতারা তাহার মন্ত্রশিষ্য ছিলেন । কালীঘাটের দুর্গাদাস ভট্টাচাৰ্য্য ও ঘনশ্যাম ভট্টাচাৰ্য্যের পুত্র কন্যারা ইহার নিকট দীক্ষা গ্ৰহণ করেন । রামশঙ্কর গুরুপুত্ৰকে গুরুর ন্যায় সৰ্ব্বদা দেখিতেন ও পূর্বের ন্যায় আসিয়া প্ৰত্যহু উপদেশ লইতেন। বিদ্যাভূষণ মহাশয়ও অনেক নিস্কর ভূমি প্ৰাপ্ত হয়েন । ইহঁর ক্রমান্বয়ে তিন কম্ভ হয়। কিন্তু তাহারা শিশু অবস্থায় মারা যায়। রাণী সরস্বতী এই সময় গুরুদেবের সমুদয় অভাব নিবারণ মানসে ৩০০০\তিন হাজার টাকার লাভের সম্পত্তির দানপত্র গোপনে প্ৰস্তুত করেন ও কেবল প্ৰধান কৰ্ম্মচারী জগন্নাথ মিশির অবগত