প্রধান মেনু খুলুন

পাতা:পণ্ডিতমশাই-শরৎচন্দ্র চট্টোপাধ্যায়.djvu/৭৩

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


দশম পরিচ্ছেদ % হয়, শিক্ষার গুণে আমরা বেশি বুঝি, তোমরাও চোখে দেখতে পাচ্চ, শামরাই সব বিষয়ে উন্নত, তখন তোমাদের কৰ্ত্তব্য আমাদের কথা শোনা। --রদান কছিল, দেখ কেশব, দেবতা ক্লেনমুখ ফেরা, তা দেবতাই r ੋ। সে কথা থাকৃ। কিন্তু তোমরা আত্মীয়ের মত আমাদের /উভকামনা কর না; মলিবের মত কর । তাই তোমাদের পোনের আন লোকেই মনে করে, যাতে ভদ্রলোকের ছেলের ভাল হয়, তাতে চাষাভূষার ছেলেরা অধঃপথে যায়। তোমাদের সংস্রবে লেখাপড় শিখলে চাষার ছেলে যে বাবু হয়ে যায়, তখন অশিক্ষিত বাপ-দাদাকে মানে না, শ্রদ্ধ করে না, বিদ্যাশিক্ষার এই শেষ পরিণতির আশঙ্ক আমরা তোমাদের আচরণেই শিথি । কেশব, আগে সামাদের অর্থাৎ এই দেশের ছোটলোকদের আত্মীয় হত শেখে, তার পরে তাদের মঙ্গলকামনা ক’রো, তাদের ছেলেপিলেদের লেখাপড়া শেখাতে যেয়ে । আগে নিজেদের আচার-ব্যবহারে দেখাও, তোমরা লেখাপড়-শেখ ভদ্রলোকেরা একেবারে স্বতন্ত্র দল নও, লেখাপড় শিখেও তোমরা দেশের অশিক্ষিত চাষা-ভুষোকে - নেহাৎ ছোটলোক মনে কর না, বরং শ্রদ্ধ কর, তবেই শুধু আমাদের ভয় ভাঙবে যে, আমাদেরও লেখাপড়-শেখ ছেলেরা আমাদের অশ্রদ্ধা সবে ল এবং দল ছেড়ে, সমাজ ছেড়ে, জাতিগত ব্যবসা-বাণিজ্য কাজ-ব সমস্ত বিসর্জন দিয়ে, পৃথক বার জন্তে উন্মুখ হয়ে উঠবে না। এ စ္သားႏွချီ কর্চ ভাই, ততক্ষণ জন্ম জন্ম অবিবাহিত থেকে গজার জীবন রক্ত ক্ষর ন কন, তোমাৰ পাঠশাল ছোটলোকের ছেলে বাবে না ; দেউ" শিক্ষিত ভদ্রলেশকে ভর করবে, মান্ত করকে ভক্তিও করবে; কিন্তু বিশ্বাস করবে না, কথা শুনবে না। এ সংশয় তাদের মন থেকে কিছুতেই খুচবে না যে, তোমাদের ভালো এবং তাদের ভালো এক নয়। কেশব ক্ষণকাল মোন থাকিয়া বলিল, বৃন্দাবন, বোধ করি তোমার