পাতা:পৃথিবীর ইতিহাস - প্রথম খণ্ড (দুর্গাদাস লাহিড়ী).pdf/৩৫৩

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


সূৰ্য্যবংশীয় নৃপতিগণ । - SBBBBBBB BBBBS BBBBS BBBS BBBBBS BBBBS BBBBS BBB BDD —ংশিলের DDDDSDBBB BBB BBBBS SBBBS BBBBS BBBBBS BDBS BBBBS BBBDS গ্রীরামচন্দ্র প্রভূতি,-পরশুরাৰ এমৃঙ্গ-নিক্ষত্রিয়া পৃথিবীতে ক্ষত্র-বংশের মূল—মূলক রাজ্য—মরমেধ-ঘজে DDBBD D BBBBBB BBBBB BBBB SBBBB DDSiSDDDB BB BBBB BBtttS SBBB BBBB BBBBBBSBBDD BBBBS BBBB BDDSBBSDDBDD D BBBDD বিবাহ,-ক্ষত্রিয় হইতে রাহ্মণ-বংশের উৎপত্তি। ] প্রজাপতি কগুপের পৌত্র বিবস্বান স্বৰ্য্য হইতেই স্বৰ্য্য-বংশের উৎপত্তি। স্বৰ্য্য-বংশের প্রথম রাজার নাম—ইক্ষাকু। তিনি বৈবস্বত মনুর জ্যেষ্ঠ পুত্র । পুরাণের রূপকে প্রকাশ,—হঁচিবার সময় মসুর ঘ্ৰাণেন্দ্রিয় হইতে র্তাহার উৎপত্তি হয় ::: বলিয়া তিনি ইস্বাকু নামে পরিচিত। ইক্ষুক অযোধ্যার সিংহাসন অলঙ্কৃত করিয়াছিলেন । তিনিই অযোধ্যার প্রথম ক্ষত্রিয় রাজ বলিয়। অভিহিত হন। ইক্ষাকুর এক শত পুত্রের মধ্যে তিন পুত্র প্রধান –বিকুক্ষি, নিমি ও দণ্ড । বিকুক্ষি অযোধ্যার এবং নিমি মিথিলার রাজ হইয়াছিলেন। বিকুকির বংশে দশরথ, রামচন্দ্রাদি এবং নিমির বংশে জনকাদি জন্মগ্রহণ করেন। শশক-মাংস ভক্ষণ করিয়, বিকুক্ষি গুরু কত্ত্বক শশাদ নামে অভিহিত ও পিত। কর্তৃক পরিত্যক্ত হন। যাহা হউক, পরিশেষে ইক্ষাকুর মৃত্যু হইলে, তিনিই অযোধ্যার সিংহাসন প্রাপ্ত হইয়াছিলেন। ইক্বাকুর অপরাপর পুত্ৰগণ৷ আর্য্যাবৰ্ত্তের ভিন্ন ভিন্ন ভাগের আধিপত্য লাভ করেন। বিকুক্ষির পুল্ল পুরঞ্জয়, ( রাজর্ষি পুরঞ্জয় ) বিশেষ প্রসিদ্ধ। দেবামুরের যুদ্ধে বৃষভরূপধারী ইন্দ্রের কুকুৎ’ অর্থাৎ, স্কন্ধদেশে অবস্থিত ছিলেন বলিয়, তিনি কুকুৎস্থ (কাকুৎস্থ) নামে পরিচিত হন। ইন্দ্র কর্তৃক । সংবাহিত হইয়াছিলেন বলিয়, ‘ইন্দ্রবাহ’ নামেও তিনি প্রসিদ্ধি লাভ করেন । দানবসমরে জয়লাভ করিয়া, তিনি দানবদিগের ধনরশি বজ্রপাণি ইন্দ্রকে প্রদান করিয়াছিলেন ; ঠাইরে পুত্রঞ্জয় নামের সার্থকতা তাহাতেই উপলব্ধি হইয়াছিল। এই বংশের শ্রাবস্ত । নামক নরপতি শ্রাবস্তি’ নায়ী পুরী নিৰ্ম্মাণ করিয়াছিলেন। শ্রাবস্তের পৌত্র রাজ। ইবপরাধ, ধুন্ধ নামক অসুরকে বিনাশ করিয়া সুকুমার সংজ্ঞ প্রাপ্ত হন। ধুন্ধু অসুর, মহর্ষি উতন্ধের যজ্ঞ-কার্য্যের অনিষ্ট সাধন করিত। সেই জন্য মহৰ্ষির হিতসাধন অভিপ্রায়ে কুবলয়াখ অমুরকে বধ করিয়াছিলেন। কুবলয়শ্বের একবিংশতি সহস্র পুত্র ছিল। কিন্তু তাহার তিন পুত্র ভিন্ন সকলেই অমুরের নিশ্বাস-সম্ভূত অগ্নিতে দগ্ধ হইয়া বিনষ্ট হয়। অতঃপর যুবনাথের পুত্ৰ-মান্ধীতা । এই মান্ধাতার উৎপত্তি-বিবরণ অলৌকিক রহস্তপরিপূর্ণ। পুরাণে প্রকাশ,—অপুল্লত্ব-নিবন্ধন নিৰ্ব্বেদ প্রাপ্ত হইয়া, যুবনাঞ্চ ঋষিগণের শাশ্রমে বসতি করিতেছিলেন। ঋষিগণ কৃপা-পরবশ হইয়া, যুবনাথের জন্য পুত্রেষ্ট-ধজের অম্বষ্ঠান করেন। মধ্য-রাত্রে যজ্ঞ শেষ হইগে, মন্ত্রপুত জল যুবনাশ্বের মহিনীর জন্য রাখিয়৷ চতুৰ্ব্বিংশ পরিচ্ছেদ।