পাতা:পৃথিবীর ইতিহাস - প্রথম খণ্ড (দুর্গাদাস লাহিড়ী).pdf/৪২৮

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


৪১৬ . ভারতবর্ষ । ভয়-বিচলিত হইত। কথিত হয়, সেই জন্যই তিনি ইষ্টকেতু নামে অভিহিত হইয়াছিলেন। পুরুজিৎ নামে যদু-বংশীয় এক নৃপতির মাম"-इब्र l ইমদ্ভাগবতের भाङ,-डिनि রুচকের পুত্র। তবে, এই কুরুক্ষেত্র মহাসমুরে তাছার উপস্থিতি সম্ভবপর কি না, বাপলত আলোচনায় তাহ নির্ণয় করা ছাপাধ্য পুনঃপুনঃ শক্র-জয় করিয়া তিনি পুরুজিং নাম প্রাপ্ত হইয়াছিলেন —তাহার নামায়ুসারে ইহাই বুর্কিতে পারা যায়। উত্তমৌজা এবং যুধামন্ত্র্য--পাঞ্চাল-দেশের দুই জন নৃপতি বলিৱা প্রসিদ্ধ। যুদ্ধ-ক্ষেত্রে অপরিমেয় সাহস-সম্পন্ন বলিয়াই উত্তমৌজা নাম —যুদ্ধে শক্রর প্রতি ক্রোধাম্বিত বলিয়াই যুধামন্ত্র্য নাম। অভিমস্থ্য এবং দ্রৌপদীর পঞ্চ-পুত্রের বিষয় পূর্বেই উক্ত হইয়াছে। সপ্তরীপরিবেষ্টত হইয়া, অঙ্গয় সম্বরে, অভিমস্থ্য নিহত হন। কুরুক্ষেত্র-যুদ্ধের অবসানে, পঞ্চপাণ্ডব-ভ্রমে, দ্রৌপদীর পঞ্চ পুত্রকে, নিদ্রিত অবস্থায়, অশ্বখামা নিহত করেন। ভীষ্ম এবং কর্ণের পরিচয় পুর্বেই প্রদত্ত হইয়াছে। পরশুরামের নিকট অস্ত্ৰ-বিদ্যা শিক্ষা করিয়া কৰ্ণ অসাধারণ বীর বলিয়। প্রসিদ্ধি-লাভ করিয়াছিলেন। কর্ণের দান-শক্তিতে মুগ্ধ হইয়া, ইঙ্গ তাহাকে শক্ৰ-সংহার-কারিণী শক্তি দান করেন। ছুৰ্য্যোধনের সাহায্যে তিনি অঙ্গ-রাজ্যে অভিষিক্ত হইয়াছিলেন। কর্ণের অপর নাম-বৈকৰ্ত্তন। দুৰ্য্যোধন কর্ণকে বীর-কুলচুড়ামণি বলিয়া বিশ্বাস করিতেন ; কিন্তু তীষ্মের নিকট কর্ণ অৰ্দ্ধরথী-মধ্যে পরিগণিত ছিলেন। কৃপাচার্য্যের জন্ম-বিবরণ অদ্ভূত রহস্ত-পরিপূর্ণ। ধন্থবিদ্যা-পারদর্শী তপস্বী শরদ্বাৰু আপন পুত্ৰ-কন্যাকে বন-মধ্যে ফেলিয়া যান। রাজা শাস্তষ্ক, মৃগয়ায় গমন করিয়া, সেই নিঃসহায় অনাথ বালক-বালিকাকে গৃহে আনয়ন করেন। র্তাহার কুপায় সেই বালক-বালিকা প্রতিপালিত হয়। কুপায় প্রতিপালিত বলিয়া, বালক-বালিকা কৃপ-কৃপী নামে অভিহিত হইয়াছিল। কিছুকাল পরে শরধান পুত্রকে আত্ম-পরিচয় প্রদান করিয়া, শাস্ত্র ও অস্ত্র-বিস্ত শিক্ষা দিয়াছিলেন। ড্রোণাচার্ঘ্যের সহিত রুপীর বিবাহ হয়। ত্রোণাচাৰ্য পাণ্ডব ও কৌরবদিগকে অস্ত্র-শস্ত্র শিক্ষা দিতেন। ইনি ভরদ্বাজ ঋষির পুত্র। যেমন শস্ত্রবিদ্যায়, তেমনি শাস্ত্র-বিস্তায় ইনি পারদর্শী ছিলেন। পরশুরামের নিকট ইনি অস্ত্র-পরিচালনা এবং ধন্থৰ্ব্বেদ শিক্ষা করেন। কথিত হয়, একটা দ্রোণ’ বা কলসের মধ্যে ইহার জন্ম হইয়াছিল, সেই জল্পই ইনি ত্রোণ’ নামে পরিচিত। ইহার পত্নী কুপীর গর্তে অশ্বথামা জন্মগ্রহণ করেন। জন্মকালে আখের কায় ধ্বনি করিয়াছিল বলিয়া, শিশুর নাম অশ্বথাম হয়। দ্রোণ—ফ্ৰপদ-রাজের বাল্য-সহচর ছিলেন। পিতা পৃষতের মৃত্যুর পর, যৌবরাজ্যে অভিষিক্ত হইয়া, গ্রুপদ গ্রোণের প্রতি অবজ্ঞার ভাব প্রকাশ করেন। সেই সময়ে তিনি দ্রোণের প্রতি এতই বিরক্ত হইয়াছিলেন যে, রোণের বিনাশ-কামনায় পুত্র-কামী হইয়া, এক যজ্ঞ করিয়াছিলেন। প্রকাশ,-সেই বঙ্গীয় হুতাশন হইতে উদ্ধায় এবং দ্ৰৌপদী উত্থিত হন। ক্রপদের বিরূপ ভাব নেৰিয়া, জোশ পাঞ্চাল-রাজ্য হইতে হস্তিন রাজ্যে চদিয়া আসেন। জীয় তাহাকে রাজকুমারগণের আচাৰ্য্য-পদে নিয়োজিত করেন। DDDBB BBB BBBBB BB BBB BBBBBBBS DDDBB BBB BB BBB