পাতা:প্রকৃতির প্রতিশোধ - রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর.pdf/৩৯

এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


বালিক। সন্ন্যাসী । বালিক। সন্ন্যাসী | পঞ্চম দৃশ্য গুহ্যদ্বারে ন। পিতা, ও-সব কথা বোলো না আমারে— শুনে ভয় করে শুধু, বুঝিতে পারি নে। তবে থাক, তবে তুই কাছে আয় মোর, দেখি তোর অতিমৃত্যু স্পর্শ সুকোমল । আহা, তোর স্পর্শ মোর ধ্যানের মতন— সীমা হতে নিয়ে যায় অসীমের দ্বারে । এ কি মায়া ? এ কি স্বপ্ন ? এ কি মোহঘোর ? জগৎ কি মায়া করে ছায়া হয়ে গিয়ে করিছে প্রাণের কাছে অনন্তের ভান ? দূরে সরিয়া বালিকা, এ-সব কথা না শুনিবি যদি সন্ন্যাসীর কাছে তবে এলি কী আশায় ? আমি শুধু কাছে কাছে রহিব তোমার, মুখপানে চেয়ে রব বসি পদতলে । নগরের পথে যবে হইবে বাহির ওই হাত ধরে আমি যাব সাথে সাথে । পিঞ্জরের ছোটো পাখি আহা ক্ষীণ অতি, এরে কেন নিয়ে যাই অনন্তের মাঝে ! ডান দিয়ে মুখ ঢেকে ভয়ে হল সারা, আমার বুকের কাছে লুকাইতে চায়! আহা, তবে নেবে অায় । থাক মুখ ঢেকে । বুকের মাঝেতে তবে থাক লুকাইয়া । ૨ છે S 0 2) ن. $ 0.